১৯ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আবু সেলিমের কার্টুন প্রদর্শনী ‘আমার প্রিয় মাতৃভূমি-৫’


আবু সেলিমের কার্টুন প্রদর্শনী ‘আমার প্রিয় মাতৃভূমি-৫’

স্টাফ রিপোর্টার ॥ মোঃ আবু সেলিমের কালি ও কলমে আঁকা কার্টুনে উপস্থাপিত হয়েছে স্বদেশের চিত্র। জন্মভূমির প্রতি ভালবাসা ও প্রত্যাশার বিপরীতে বাংলাদেশে যে রূঢ় বাস্তবতা সে সবই উঠে এসেছে শিল্পীর চিত্রপটে। আলিয়ঁস ফ্রঁসেজ দো ঢাকার জুম গ্যালারিতে চলমান এ প্রদর্শনীর শিরোনাম ‘আমার প্রিয় মাতৃভূমি ৫’। এটি শিল্পীর পঞ্চম কার্টুন প্রদর্শনী। সমাজ বাস্তবতার হাস্যকর ও ব্যঙ্গাত্মক দিকটি ব্যঞ্জনা পেয়েছে এ ব্যঙ্গ-রম্য চিত্রমালার সংকলনে। সময়, বিশেষ ঘটনা, মানুষ, পরিস্থিতির প্রেক্ষিতে কৌতুকাবহ ভাবনাগুলো উপস্থাপিত হয়েছে প্রদর্শনীতে। সেই সূত্রে আবু সেলিম রাজাকার, দুর্নীতিবাজ, নোংরা রাজনীতি, সন্ত্রাসী আর পরিবেশখেকোদের স্বরূপ উপস্থাপনের প্রয়াস চালিয়েছেন কার্টুন চিত্রের মাধ্যমে। প্রদর্শনীর চিত্রকর্ম প্রসঙ্গে শিল্পী বলেন, আমাদের দেশ স্বাধীনের ৪৪ বছর পেরিয়েছে। অথচ কী প্রাপ্তি আমাদের চার যুগের স্বাধীনতায়? দেশের মানুষ আজও বন্দী, জিম্মি নিজ দেশের মানুষের অন্যায়-অবিচার-অন্যায্যতার কাছে। স্বাধীনতার চার দশক অতিবাহিত হলেও নব্য শিশু প্রজন্মও দেখে চলেছে একই ধারাবাহিকতা। ধর্মের নামে, নিয়ম-শৃঙ্খলার নামে, স্বাধীনতার চেতনার বিপরীতে চলছে সাধারণ মানুষের অধিকার হরণের শাসন- শোষণ। চলছে সমাজের ক্ষমতাবানদের দুর্নীতি-স্বজনপ্রীতি, পেশীশক্তির তা-ব, দুর্বৃত্তের দৌরাত্ম্য, নৈরাজ্য- সহিংসতা, হরতাল, অবরোধ, ধ্বংস-আগুন-ভাংচুর আর বিচারহীনতা।

আবু সেলিমের কার্টুনে ধরা দিয়েছে দেশের স্বরূপ। গ্রামের কৃষক ঘাম ঝরিয়ে ফসল ফলাচ্ছে। আবার কোন চিত্রে জেলেরা ধরছে মাছ। সে গ্রামেই হচ্ছে বন্যার মতো বিপর্যয়। শহরে এসে মানুষের শুরু হয় নতুন জীবনসংগ্রাম। কিন্তু দুর্নীতি, দূষণ, সন্ত্রাস ও অপরাজনীতির কাছে পরাজিত হচ্ছে তারা। কার্টুন ও চিত্রে বাংলাদেশের এ গল্পটাই বলতে চেয়েছেন মোঃ আবু সেলিম।

ছবিগুলোতে স্পষ্টত দেখা যায় দুটি ধারা। একই বাংলাদেশের হৃদয়ে দুটি চিত্র। একদিকে সততার সঙ্গে কায়িক শ্রম করা মানুষ প্রকৃতি ও মানুষের তৈরি দুর্যোগে সব হারাচ্ছে, অন্যদিকে আরেক দল মানুষ এসব দুর্যোগ তৈরি করছে। তাদের পকেটে অনেক টাকা। একটি ছবিতে করমর্দনের বাহানায় ৫০০ টাকা ঘুষ দেয়া হচ্ছে, আরেকটিতে সততাকে হারিকেন দিয়ে খুঁজতে হচ্ছে। কুশিক্ষা আর মিথ্যাচাররাই বৈভবের মালিক। অন্য আরেক ছবিতে গাছকাটা উৎসব ফিতা কেটে উদ্বোধন করা হচ্ছে।

২২ মে থেকে শুরু হওয়া এই কার্টুন প্রদর্শনী শেষ হবে আজ শুক্রবার। সকাল ৯টা থেকে বেলা ১২টা এবং বিকেল ৫টা থেকে রাত আটটা পর্যন্ত দর্শনার্থীর জন্য উন্মুক্ত থাকবে ।

শিল্পী মালেকা আজিম খান স্মরণ ॥ সম্প্রতি না-ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন বিশিষ্ট রবীন্দ্রসঙ্গীত শিল্পী মালেকা আজিম খান। এই শিল্পীর আরেক পরিচয়; তিনি ছিলেন ছায়ানটের সাধারণ সংসদ সদস্য। আজ শুক্রবার প্রয়াত এই শিল্পীকে যৌথভাবে স্মরণ করবে ছায়ানট ও জাতীয় রবীন্দ্রসঙ্গীত সম্মিলন পরিষদ। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় ধানম-ির ছায়ানট ভবনের রমেশচন্দ্র দত্ত মিলনায়তনে শুরু হবে এ স্মরণানুষ্ঠান।

শিশু আনন্দমেলা ও শিশুনাট্য উৎসব ॥ প্রতিবারের মতো এবারও বাংলাদেশ শিশু একাডেমি আজ শুক্রবার দুই দিনব্যাপী শিশু আনন্দমেলা ও শিশুনাট্য উৎসবের আয়োজন করেছে। আজ বিকেল ৪টায় একাডেমি প্রাঙ্গণে শহীদ মতিউর মুক্তমঞ্চে প্রধান অতিথি হিসেবে শিল্পী হাশেম খান মেলা ও উৎসবের উদ্বোধন করবেন। বিশেষ অতিথি থাকবেন চলচ্চিত্র নির্মাতা সৈয়দ সালাহ উদ্দীন জাকী, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. অহিদুজ্জামান ও সঙ্গীতশিল্পী ফরিদা পারভীন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখবেন শিশু একাডেমির পরিচালক মোশাররফ হোসেন। সভাপতিত্ব করবেন একাডেমির চেয়ারম্যান বরেণ্য কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন।

আজ থেকে তির্যক নাট্যমেলা ॥ চট্টগ্রামের নাট্যদল তির্যক। সময়ের বহমানতায় দলটি অতিক্রম করেছে প্রতিষ্ঠার চার দশক। আর দলের ৪০ বছরপূর্তি উপলক্ষে নেয়া হয় বছরব্যাপী কর্মসূচী। আজ শুক্রবার থেকে শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় নাট্যশালা মিলনায়তনে শুরু হচ্ছে দুই দিনব্যাপী সমাপনী অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠিত হবে তির্যক নাট্যমেলা। এই নাট্যায়োজনে থাকবে তির্যকের ৪০ বছরের নাট্য-স্মারক প্রদর্শনী, আলোচনা, সম্মাননা জ্ঞাপন ও প্রতিদিন মুক্তমঞ্চে বিকেল পাঁচটায় চট্টগ্রামের লোকগান পরিবেশনা। এ ছাড়া শুক্র ও শনিবার সন্ধ্যা ৭টায় পরিবেশিত হবে আহমেদ ইকবাল হায়দার নির্দেশিত তির্যকের দুটি মঞ্চনাটক। শুক্রবার মঞ্চস্থ হবে সোফোক্লিসের গ্রিক ট্র্যাজেডি ‘ইডিপাস’ এবং শনিবার প্রদর্শিত হবে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নাটক ‘রক্তকরবী’। আজ বিকেল সাড়ে পাঁচটায় নাট্যমেলা উদ্বোধন করবেন সংস্কৃতিমন্ত্রী ও নাট্যজন আসাদুজ্জামান নূর।

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: