১৯ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট পূর্বের ঘন্টায়  
Login   Register        
ADS

স্বর্ণখচিত টয়লেট প্রসঙ্গে তুর্কী প্রেসিডেন্টের চ্যালেঞ্জ


অনলাইন ডেস্ক : তুরস্কের প্রেসিডেন্ট তাঁর প্রাসাদে সোনায় মোড়ানো টয়লেট আছে বলে যে দাবি করা হচ্ছে তা খন্ডনের জন্য বিরোধী দলীয় নেতাকে তাঁর টয়লেট দেখার আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।

তুরস্কের বিরোধী দল রিপাবলিকান পার্টির নেতা কেমাল কিলিকদারুগুলু অভিযোগ করেছিলেন যে প্রেসিডেন্ট করদাতাদের অর্থ খরচ করে তাঁর প্রাসাদে সোনায় মোড়ানো টয়লেট বানাচ্ছেন।

জবাবে প্রেসিডেন্ট রেচেপ তাইয়িপ এরদোয়ান বলেন, যদি এরকম কোন টয়লেট তাঁর প্রাসাদে বিরোধীরা খুঁজে বের করতে পারে, তিনি পদত্যাগ করবেন। তুরস্কের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে দেয়া সাক্ষাৎকারে মিস্টার এরদোয়ান বলেন, আমি তাদেরকে আমার টয়লেট ঘুরে দেখার আমন্ত্রণ জানাই।

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট যে প্রাসাদে থাকেন, সেটিতে এক হাজারের বেশি কক্ষ আছে। এই প্রাসাদে বসেই মিস্টার এরদোয়ান যখন সাক্ষাৎকার দিচ্ছিলেন, তখন তার পেছনে দেখা যাচ্ছিল অনেক সোনালি কারুকার্য-খচিত আসবাবপত্র।

রেচেপ তাইয়িপ এরদোয়ান এক দশকের বেশি সময় ধরে তুরস্কের রাজনীতি নিয়ন্ত্রণ করছেন। এর আগে তিনি তুরস্কের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন কালে ষাট কোটি ডলারের বেশি অর্থ খরচ করে এই প্রাসাদটি বানানো হয়। ২০১৪ সালের আগষ্টে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট হওয়ার পর তিনি এই প্রাসাদে উঠেন।

আকারে তুরস্কের প্রেসিডেন্টের এই প্রাসাদ হোয়াইট হাউস কিংবা ক্রেমলিনের চেয়েও বড়।

সূত্র : বিবিসি