২১ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৭ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

‘শিক্ষার মাধ্যমে পুষ্টিহীনতা দূর সম্ভব’


স্টাফ রিপোর্টার ॥ সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচীর আওতায় নগদ অর্থ প্রদান ও পুষ্টি শিক্ষার মাধ্যমে পুষ্টিহীনতা দূর করার ক্ষেত্রে সর্বাধিক প্রভাব রাখে বলে এক গবেষণায় উঠে আসে। মঙ্গলবার রাজধানীর হোটেল লেকশোর এক অনুষ্ঠানে এই গবেষণা প্রতিবেদন প্রকাশ করে ওয়ার্ল্ড ফুড প্রোগ্রাম ও ইন্টারন্যাশনাল ফুড পলিসি রিসার্চ ইনস্টিটিউট (আইএফপিআরআই)। এই দুই প্রতিষ্ঠান যৌথভাবে ওই গবেষণা পরিচালনা করে। অনুষ্ঠানে জানানো হয়, দেশের উত্তরাঞ্চল ও দক্ষিণাঞ্চলের মোট ১০টি উপজেলার ৫শ’ গ্রামের অতিদরিদ্র পরিবারের ওপর দুই বছর ধরে এই গবেষণা পরিচালনা করা হয়। এই ক্ষেত্রে ওই সব পরিবারকে বাছাই করা হয় যেখানে ২৪ মাসের কম বয়সী ন্যূনতম একটি শিশু আছে। তবে, ওই পরিবার কোনভাবেই সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচীর আওতায় অন্য কোন প্রকল্প থেকে সুবিধা নিতে পারবে না। এসব পরিবারকে নগদ অর্থ, খাদ্য ও পুষ্টি শিক্ষার মাধ্যমে এই গবেষণা চালানো হয়। অনুষ্ঠানে ওয়ার্ল্ড ফুড প্রোগ্রামের প্রতিনিধি ক্রিস্টা রাডার বলেন, যারা নগদ অর্থ ও পুষ্টি শিক্ষা পেয়েছে। পুষ্টিহীনতার কারণে তাদের পরিবারে সন্তান বয়সের তুলনায় কম উচ্চতার হওয়ার প্রবণতা শতকরা ৭ দশমিক ৩ শতাংশ কমেছে। এই গবেষণায় নেতৃত্ব দেন আইএফপিআরআই’র ড. আক্তার আহমেদ। অনুষ্ঠানে পিকেএসফএর চেয়ারম্যান ড. কাজী খলীকুজ্জামান আহমদ বলেন, শিশু জন্মের পর প্রয়োজন তার পুষ্টি। এরপর শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ। এছাড়া স্বাস্থ্য সেবা দিতে হবে পরিবারের সবাইকে।