১৯ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

দেহরক্ষীকে দিয়ে জুতোর ফিতা বাঁধালেন মমতার মন্ত্রী


পশ্চিমবঙ্গের একজন মন্ত্রীর জুতোর ফিতা বেঁধে দিয়েছেন একজন পুলিশ। ঘটনাটি ঘটে মঙ্গলবার রাজ্য সচিবালয়ে এক সরকারী অনুষ্ঠানে। প্রখ্যাত ভাস্কর ও চিত্রশিল্পী রামকিঙ্কর বাইজের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে তার স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে ওই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। এ সময়ে পরিকল্পনা মন্ত্রী বাচপাল সিংয়ের ব্যক্তিগত দেহরক্ষী তার জুতোর ফিতা বেঁধে দেয়ার দৃশ্য গণমাধ্যমে চলে আসে।

প্রয়াত শিল্পীর ভাস্কর্যে পুষ্পমাল্য অর্পণের জন্য রাচপাল প্রথমে নিজের জুতোটি খোলেন। পরে জুতো পরতে সমস্যা হলে দেহরক্ষী দ্রুত ছুটে এসে তার জুতোর ফিতা বেঁধে দেন। মন্ত্রীকে বেশিক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকতে হয়নি। রাচপাল ভারতীয় পুলিশ বিভাগের একজন সাবেক কর্মকর্তা। এই ঘটনায় মমতা ব্যানার্জীর নেতৃত্বাধীন তৃণমূল সরকারের সমালোচননায় সরব হয়েছে বিরোধী দলগুলো। বিষয়টি মমতার সাধাসিধে ইমেজের সঙ্গেও সঙ্গতিপূর্ণ নয়।

-এনডিটিভি

দু’সন্তান ফেলে অস্ট্রেলীয় মা যোগ দিলেন আইএসে

আন্তর্জাতিক জঙ্গী সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) অধীনে নতুন জীবন শুরু করতে দুই সন্তান ফেলে সিরিয়া গেছেন এক অস্ট্রেলীয় মা।

ওই জিহাদিদের দলে ইতোমধ্যে শতাধিক অস্ট্রেলীয় যোগ দিয়েছে বলে খবর রয়েছে। অস্ট্রেলীয় সরকার বলেছে, এই খবর খুবই বিব্রতকর এবং পরিস্থিতি গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে।

সিডনি ডেইলি টেলিগ্রাফ জানায়, অন্য ধর্ম থেকে মুসলমান হওয়া ২৬ বছর বয়সী নারী জেসমিনা মিলোভানভ চলতি মাসের শুরুতে তার ৫ ও ৭ বছর বয়সী দুই সন্তানকে বেবিসিটারে রেখে চলে যান। এরপর তিনি আর ফেরেননি। তার সাবেক স্বামীর উদ্ধৃতি দিয়ে পত্রিকাটি বলেছে, জেসমিনা তাকে এক ক্ষুদে বার্তায় জানিয়েছে, সে এখন সিরিয়া আছে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে তার স্বামী বলেন, ‘আমি এখন কেবল আমার সন্তানদের কথা ভাবছি। আমি বিশ্বাস করতে পারছি না, সে ফুলের মতো দুটি শিশুকে রেখে চলে গেছে। কয়েকদিন পরে আমার ছেলে বলে, আমি আশা করি মা ভাল আছে।’ তিনি বলেন, ‘সিরিয়া যাওয়ার আগে সে তার ফেসবুকে কয়েকটি চরমপন্থী কথাবার্তা পোস্ট করে।

এ বিষয়ে আমি তার সঙ্গে কথাও বলেছি। আমি বলেছি, এগুলো চরমপন্থী কথাবার্তা, নির্বুদ্ধিতার পরিচয়। সে যা ভাবছে আমি সে বিষয়ে তাকে সতর্ক করেছিলাম।’ ফেসবুকে মিলোভানভের বন্ধুত্ব হয় জারা দুমান নামের এক নারীর সঙ্গে। জারা দুমান অস্ট্রেলিয়ায় ‘জিহাদিদের জন্য স্ত্রী নিয়োগকারী’ এবং আইএসে যোগ দেয়ার জন্য নারীদের ফুসলাতে সামাজিক মাধ্যম ব্যবহারকারী হিসেবে পরিচিত।

-এএফপি