২৪ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

হাসানুজ্জামান খানকে সহকর্মী ও বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষের শেষ শ্রদ্ধা


হাসানুজ্জামান খানকে সহকর্মী ও বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষের শেষ শ্রদ্ধা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ প্রবীণ সাংবাদিক হাসানুজ্জামান খানের প্রতি শেষ শ্রদ্ধা জানিয়েছেন তাঁর দীর্ঘদিনের সহকর্মী ও বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ। মঙ্গলবার জোহরের নামাজের পর জাতীয় প্রেসক্লাব প্রাঙ্গণে হাসানুজ্জামান খানের জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। পরে সেখানেই তাঁর কফিনে শ্রদ্ধা জানান সাংবাদিকরা। সোমবার জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান হাসান উজ্জামান। তাঁর বয়স হয়েছিল ৯০ বছর।

অন্যদের মধ্যে অধ্যাপক আনিসুজ্জামান, অধ্যাপক মনসুর মুসা, সাংবাদিক কামাল লোহানী, আমানউল্লাহ, রিয়াজউদ্দিন আহমেদ, আবদুল মতিন, দিদার বখত, সালেহ চৌধুরী, সৈয়দ আবুল মকসুদ, রুহুল আমিন গাজী, শওকত মাহমুদ, আজিজুল ইসলাম ভুঁইয়া, কামরুল ইসলাম চৌধুরী, সংসদ সদস্য ফখরুল ইসলাম মুন্সি, কণ্ঠশিল্পী আবদুল জাব্বার, প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আবদাল আহমেদ, প্রেসক্লাবের প্রবীণ এই সদস্যের জানাজায় অংশ নেন।

জানাজার পর হাসান উজ্জামানের কফিনে শ্রদ্ধা জানান প্রবীণ সাংবাদিক গোলাম সারওয়ার, শাহজাহান মিয়া ও বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার (বাসস) সাবেক প্রধান সম্পাদক ডিপি বড়ুয়া। পরে তার মরদেহ দাফনের জন্য মিরপুরের শহীদ বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে নেয়া হয়।

হাসান উজ্জামান খান ৬০ বছরের সাংবাদিকতা জীবনের বেশিরভাগ সময় রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা বাসসে কাজ করেছেন। এ সংস্থার প্রধান বার্তা সম্পাদক, ব্যবস্থাপনা সম্পাদক ও উপদেষ্টা সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন তিনি। ১৯৪৫ সালে কলকাতা থেকে প্রকাশিত দৈনিক আজাদ পত্রিকা দিয়ে হাসান উজ্জামানের সাংবাদিকতা জীবনের শুরু। তিনি স্বাধীনতা, পাকিস্তান অবজারভার, বঙ্গবার্তা, নিউ নেশন, বাংলাদেশ টুডে, ফিন্যানশিয়াল এক্সপ্রেসসহ বিভিন্ন সংবাদপত্রে কাজ করেন।

সাংবাদিকতায় অবদানের জন্য সরকার হাসান উজ্জামানকে একুশে পদকেও ভূষিত করে।

১৯২৬ সালের ৫ সেপ্টেম্বর ঢাকার কেরানীগঞ্জের কলাতিয়া গ্রামে জন্ম নেন হাসান উজ্জামান খান। তিনি জাতীয় প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সদস্যদের অন্যতম। ক্লাবের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্বও তিনি একসময় পালন করেন। সাংবাদিকতার পাশাপাশি তিনি বিজ্ঞান বিষয়ক লেখালেখিও করতেন। তাঁর সম্পাদনায় ‘এগ্রিকালচার ইন বাংলাদেশ’ নামে একটি বই প্রকাশিত হয়েছে। আগামীকাল বৃহস্পতিবার আছরের পর মিরপুরের বাসায় তার কুলখানি হবে বলে পরিবারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: