২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই ঘন্টায়  
Login   Register        
ADS

ভারত ও পাকিস্তানে ধর্মীয় স্বাধীনতা সঙ্কোচনের নিন্দায় যুক্তরাষ্ট্র


মোদি সরকার ক্ষমতার আসার পর ভারতে ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের ওপর সহিংস হামলা বৃদ্ধি পেয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র কংগ্রেসের এক রিপোর্টে একথা বলা হয়েছে। আন্তর্জাতিক ধর্মীয় স্বাধীনতা সংক্রান্ত সর্বশেষ মার্কিন কমিশনের রিপোর্টে একথাও উল্লেখ করা হয়েছে যে, পাকিস্তান ধর্মীয় স্বাধীনতার ক্ষেত্রে বিশ্বের যেসব দেশে সবচেয়ে খারাপ পরিস্থিতি বিরাজ করছে তার অন্যতম দৃষ্টান্ত। যুক্তরাষ্ট্র অবশ্য পাকিস্তানকে ‘বিশেষভাগে উদ্বেগজনক দেশ’ হিসেবে চিহ্নিত করেনি। এই চিহ্নিতকরণের কারণে অর্থনৈতিক অবরোধ আরোপিত হতে পারে। খবর ডনের।

ওই কমিশন আবার সুপারিশ করেছে যে, পাকিস্তানকে আন্তর্জাতিক ধর্মীয় স্বাধীনতা আইনের (আইআরএফএ) অধীনে ‘বিশেষভাবে উদ্বেগের দেশ’ হিসেবে চিহ্নিত করা হোক। কমিশন ২০০২ সাল থেকে এ ধরনের সুপারিশ করে আসছে। ভারত প্রসঙ্গে কমিশনের রিপোর্টে বলা হয়েছে, ‘গত বছরের নির্বাচনের পর থেকে ধর্মীয় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়গুলোকে ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) সঙ্গে সংযোগ আছে এমন রাজনীতিবিদদের মর্যাদাহানিকর মন্তব্য এবং রাষ্ট্রীয় স্বয়ং সেবক সংঘ (আরএসএস) এবং বিশ্ব হিন্দু পরিষদের (ভিএইচপি) মতো হিন্দু জাতীয়তাবাদী গোষ্ঠীগুলোর অনেক সহিংস হামলা ও জোরপূর্বক ধর্মান্তকরণের শিকার হতে হয়েছে।

এতে উল্লেখ করা হয় যে, গত ডিসেম্বরে হিন্দু গোষ্ঠীগুলো এক তথাকথিত ‘ঘর ওয়াপসি’ (ঘরে ফেরা) কর্মসূচীর অধীনে উত্তর প্রদেশে অন্তত ৪ হাজার খ্রীস্টান পরিবার ও ১ হাজার মুসলিম পরিবারকে জোরপূর্বক ‘পুনঃ ধর্মান্তকরণের’ পরিকল্পনা ঘোষণা করে।

টেক্সাসে প্রদর্শনীতে হামলার দায় স্বীকার আইএসের

যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের ডালাসে হযরত মোহাম্মদ (সাঃ)কে নিয়ে কার্টুন প্রদর্শনীতে হামলার দায় স্বীকার করেছে জঙ্গী সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস)। সংগঠনটির রেডিও স্টেশন আল বাইয়ান মঙ্গলবার এক অডিও বিবৃতিতে বলেছে, খেলাফতের দুই যোদ্ধা রবিবারের এই হামলা চালিয়েছে। তবে তারা এ বিষয়ে আর বিস্তারিত কিছু জানায়নি।

-ওয়েবসাইট