২২ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ব্রিজটাউনে কুকের সেঞ্চুরি


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বুকের ওপর থেকে পাথর নেমে গিয়েছিল দ্বিতীয় টেস্টেই। এ্যালিস্টার কুক ফর্মে ফিরেছিলেন দারুণ দুটি হাফ সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে। তৃতীয় টেস্টেও হাসল সফরকারী অধিনায়কের ব্যাট। কঠিন সময় পেছনে ফেলে ঘুরে দাঁড়ানো কুক তুলে নিয়েছেন ক্যারিয়ারের ২৬ নম্বর সেঞ্চুরি, সতীর্থ ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় তবু ব্রিজটাউন টেস্টের প্রথম দিনে কোণঠাসা অতিথিরা। ২৪০ রান তুলতে ৭ উইকেট নেই ইংল্যান্ডের! ওয়েস্ট ইন্ডিজ বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের মুখে কুক (১০৫) ও মঈন আলি (৫৮) ছাড়া আর কেউ দাঁড়াতে পারেননি।

স্বাগতিক বোলারদের সাঁড়াশি আক্রমণ। একের পর এক সঙ্গীর সাজঘরে ফেরা... কঠিন পরিস্থিতিতে প্রথম দিনে ইংলিশ ব্যাটিংয়ের গল্পটা কেবলই কুকের। দিনের একেবারে শেষ বলে (৮৯.২ ওভার) আউট হওয়ার আগে ২৬৬ বলে ১২ চারের সাহায্যে ১০৫ রান করেন তিনি। প্রতিরোধের পথে দু-দুটি হাফ সেঞ্চুরির জুটি গড়েন। দুই বছর পর ক্যারিয়ারের ২৬তম টেস্ট সেঞ্চুরির দেখা পান ইংল্যান্ড অধিনায়ক। দেশের হয়ে রেকর্ড সর্বাধিক সেঞ্চুরির মালিক (২৩ সেঞ্চুরি নিয়ে তাঁর পেছনে কেভিন পিটারসেন)। লিডসে ২০১৩ সালের ২৪ মে পেয়েছিলেন আগের সেঞ্চুরি। মাঝে উত্থান-পতন কত কী! হারিয়েছেন ওয়ানডের নেতৃত্ব, এমনকি বিশ্বকাপ দলেও সুযোগ হয়নি আধুনিক ইংল্যান্ডের অন্যতম সেরা এ ব্যাটসম্যানের!

সব মিলিয়ে কুকের হতাশা তাড়ানো সেঞ্চুরি সত্ত্বেও ব্রিজটাউনে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টেস্টের প্রথম দিনটি ছিল স্বাগতিক ক্যারিবীয়দের। যেখানে বল হাতে নেতৃত্ব দিয়েছেন দুই পেসার শ্যানন গ্যাব্রিয়েল ও জেসন হোল্ডার। প্রতিপক্ষের ৭ উইকেটের ৪টিই তুলে নিয়েছেন তারা। টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই বিপদে পড়ে ইংল্যান্ড। স্কোর বোর্ডে কোন রান জমা করার আগে সাজঘরে ফেরেন জোনাথান ট্রট (০)। মাত্র ১ ওভারের ব্যবধানে গ্যারি ব্যালান্স ও ইয়ান বেল যখন প্যাভিলিয়নমুখী ১৮তম ওভারে ৩ উইকেট নেই অতিথিদের! আগের ম্যাচে দুর্দান্ত ব্যাটিং করা ব্যালান্সকে ১৮ রানে পরিষ্কার বোল্ডআউট করেন হোল্ডার।

ইয়ান বেলকে ফিরতি ক্যাচ বানিয়ে আশাজাগানিয়া সাফল্য উপহার দেন হোল্ডার। এরপরই জো রুট ও মঈন আলিকে নিয়ে অধিনায়ক কুকের প্রতিরোধ। তৃতীয় উইকেটে রুটকে সঙ্গে নিয়ে ৫৩ ও পঞ্চম উইকেটে মঈন আলীর সঙ্গে কুক গড়েন কার্যকর ৯৮ রানের জুটি। ৫৮ রান করা অলরাউন্ডার মঈন ফেরেন রানআউট হয়ে। উইন্ডিজের হয়ে গ্যাব্রিয়েল-হোল্ডার ২টি ও স্যামুয়েলস-পারমল নেন ১টি করে উইকেট।

সংক্ষিপ্ত স্কোর ॥ ইংল্যান্ড প্রথম ইনিংস ২৪০/৭ (৮৯.২ ওভার; কুক ১০৫, মঈন ৫৮, রুট ৩৩; হোল্ডার ২/৩৪, গ্যাব্রিয়েল ২/৩৬)। ** প্রথম দিন শেষে

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: