২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৭ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

দক্ষ জনশক্তি গড়তে ঢাকায় আন্তর্জাতিক সম্মেলন


স্টাফ রিপোর্টার ॥ কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষিত করে দক্ষ জনশক্তি গড়ে তোলার লক্ষ্যে ঢাকায় শুরু হতে যাচ্ছে ‘টেকসই উন্নয়নের জন্য কারিগরি ও বৃত্তিমূলক শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ (টিভিইটি)’ শীর্ষক এক আন্তর্জাতিক সম্মেলন। বৃহস্পতিবার থেকে তিন দিনব্যাপী চলা ওই সম্মেলনে ১৭টি দেশের প্রতিনিধিরা উপস্থিত থাকবেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আন্তর্জাতিক ওই সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন।

শনিবার রাজধানীর ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশ (আইডিইবি) সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানানো হয়।

বাংলাদেশ সরকারের শিক্ষা মন্ত্রণালয়, কানাডা ও বিশ্বব্যাংকের সহযোগিতায় ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশ (আইডিইবি) এবং কলম্বো প্লান স্টাফ কলেজ (সিপিএসসি), ম্যানিলা যৌথভাবে শিক্ষা সংক্রান্ত এ আন্তর্জাতিক সম্মেলনের আয়োজন করছে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ৩০ এপ্রিল সকাল সাড়ে ১০টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে আয়োজিত ওই আন্তর্জাতিক সম্মেলন উদ্বোধন করবেন। ওই সম্মেলনে বাংলাদেশ ছাড়াও অস্ট্রেলিয়া, সিঙ্গাপুর ও সার্কভুক্ত সকল দেশ এবং উন্নয়ন সহযোগী সংস্থাগুলোর ঢাকার প্রতিনিধিরা যোগ দেবেন। বিশ্বের টিভিইটি বিশেষজ্ঞরা বিভিন্ন কর্মঅধিবেশনে প্রায় ৫০টি সেমিনার পেপার এবং ৪টি গুরুত্বপূর্ণ প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন বলে জানানো হয়।

লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, সম্মেলনের প্রধান লক্ষ্য হলো প্রযুক্তিগত বৃত্তিমূলক শিক্ষা ও প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দেশে দক্ষ জনশক্তির হার বৃদ্ধি করা। কারিগরি শিক্ষা আধুনিক হলে উৎপাদন ও উৎপাদনশীলতার করণে শিক্ষার্থীদের অধিকতর অংশগ্রহণের সুযোগ হবে। তাদের আধুনিক ও প্রযুক্তিনির্ভর শিক্ষার ফলে দেশের অীর্থনৈতিক উন্নয়ন আরও টেকসই হবে। কারিগরি শিক্ষার মাধ্যমে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন দ্রুত ত্বরান্বিত হয়, আর এ কারণেই এ সম্মেলনের আয়োজন।

সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন আইডিইবির সাধরণ সম্পাদক শামসুর রহমান। সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন আইডিইবির সভাপতি এ কে এম এ হামিদ, বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান ড. মে. মুস্তাফিজুর রহমান, আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থার প্রোগ্রাম অফিসার ড. হরিপদ দাস এবং দক্ষতা ও প্রশিক্ষণ উন্নয়ন প্রকল্পের (স্টেপ) উপ-প্রকল্প পরিচালক এ জে এম আব্দুল্লাহ হেল বাকি প্রমুখ ব্যক্তিবর্গ।