১৭ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ঢাবিতে ধ্রুপদী বাংলাদেশী সিনেমা নিয়ে সেমিনার


ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র অধ্যয়ন বিভাগের উদ্যোগে গত ১৯ এপ্রিল সামাজিক বিজ্ঞান ভবনের মোজাফফর আহমেদ চৌধুরী অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়েছে ধ্রুপদী বাংলাদেশী সিনেমার উপর বিশেষ সেমিনার। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বিশিষ্ট চলচ্চিত্র প্রযোজক হাবিবুর রহমান খান। অনুষ্ঠানটি সভাপতিত্ব করেন টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র অধ্যয়ন বিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. এজেএম শফিউল আলম ভূঁইয়া। অন্যদের মধ্যে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. ফরিদ উদ্দীন আহমেদ এবং টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র অধ্যয়ন বিভাগের প্রভাষক শেখ মাহমুদা সুলতানা এবং প্রভাষক রিফফাত ফেরদৌস। সেমিনারে বিভাগের স্নাতক এবং স্নাতকোত্তর শ্রেণীর বিভিন্ন বর্ষের শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে প্রযোজক হাবিবুর রহমান খান বিভাগীয় চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. এজেএম শফিউল আলম ভূঁইয়ার হাতে ‘পদ্মা নদীর মাঝি’, ‘তিতাস একটি নদীর নাম’ এবং ‘মনের মানুষ’ চলচ্চিত্রের স্মারকগ্রন্থ শুভেচ্ছা উপহার হিসেবে তুলে দেন। উল্লেখ্য, এই তিনটি ধ্রুপদী চলচ্চিত্রের প্রযোজক ছিলেন হাবিবুর রহমান খান। তিনি ঋতিক ঘটকের সঙ্গে ‘তিতাস একটি নদীর নাম’ চলচ্চিত্র নির্মাণকালীন বিরল অভিজ্ঞতার কথা শিক্ষার্থীদের কাছে বর্ণনা করেন। তিনি বলেন, ‘সিনেমাটির কাজ শুরু করেছিলাম একদম স্বাধীনতা লাভের পরপরই। আমরা সবাই সদ্য মুক্তিযুদ্ধ থেকে ফিরে এসেছি। আমরা এমন একটি সিনেমা বানাতে চেয়েছিলাম যা বাংলাদেশকে পৃথিবীর মানুষকে নতুনভাবে চেনাবে। আমরা ব্যর্থ হইনি। এখনও সারা পৃথিবীর সেরা সিনেমাগুলোর একটি এই সিনেমাটি। কানের ওয়ার্ল্ড ক্লাসিক কর্নারের সেরা সিনেমার ক্যাটাগরিতে বর্তমানে এক নম্বরে অবস্থান করছে এই চলচ্চিত্রটি। এটি সব বাংলাদেশীর জন্য একটি গর্বের ব্যাপার।’ অনুষ্ঠানের শেষপর্যায়ে প্রশ্নোত্তর পর্বে বাংলাদেশের সিনেমার বর্তমান নানাদিক নিয়ে তাঁকে প্রশ্ন করেন শিক্ষার্থীরা। তিনি শিক্ষিত তরুণদের আরও বেশি দেশাত্মবোধে উদ্বুদ্ধ হয়ে ভাল চলচ্চিত্র নির্মাণের তাগিদ দেন। হাবিুবর রহমান খান বর্তমানে ‘শঙ্খচিল’ নামে একটি চলচ্চিত্র প্রযোজনা করছেন সেটি পরিচালনা করছেন ভারতের অরেক গুণী পরিচালক ‘পদ্মা নদীর মাঝি’ খ্যাত গৌতম ঘোষ। বাংলাদেশের বিভিন্ন লোকেশনে চলচ্চিত্রটির চিত্রধারণের কাজ প্রায় শেষপর্যায়ে।

আনন্দকণ্ঠ ডেস্ক

ছবি : হিমেল খান