২২ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

সংক্ষিপ্ত সংবাদ


ব্রাজিলের ক্লাব কোরিন্থিয়ান্সের আট ফুটবল সমর্থককে গুলি করে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। ব্রাজিলের বৃহত্তম শহর সাওপাওলোতে শনিবার রাতে হৃদয়বিদারক এ ঘটনা ঘটে। আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের উদ্ধৃতিতে জানা যায়, বন্দুকধারীদের হামলার সময় কোরিন্থিয়ান্স ক্লাবের ওই সমর্থকেরা একটি ম্যাচের আগে ব্যানার তৈরিতে ব্যস্ত ছিলেন। স্থানীয় পুলিশ জানায়, বন্দুকধারীরা ক্লাবের প্রধান কার্যালয়ে প্রবেশ করে ক্লাবের সমর্থকদের মেঝেতে শুয়ে পড়ার নির্দেশ দেন। শুয়ে পড়ার সঙ্গে সঙ্গেই তাদের গুলি করা হয়। সঙ্গে সঙ্গেই সাতজন নিহত হন। এক সমর্থক পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টাকালে তাকেও গুলি করা হয়। পরে তারও মৃত্যু হয়। ‘পাভিলহাও নোভে সমর্থক’ গোষ্ঠীর ক্লাবে এই হত্যাকা- মাদক বিষয়ের কারণে হয়েছে বলে মনে করছে পুলিশ।

গ্রেনাডা টেস্ট ঘিরে রোমাঞ্চের আবহ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ তিন টেস্টের সিরিজে ইংল্যান্ড স্বীকৃত ফেবারিট। কিন্তু এ্যান্টিগায় প্রথম ম্যাচে ইংলিশদের নাগালের জয়টা কেড়ে নিয়ে অবিশ্বাস্য এক ড্রই উপহার দিয়েছে স্বাগতিকরা। যেখানে দ্বিতীয় ইনিংসে আট নম্বরে নেমে দুরন্ত সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে ‘নায়ক’ ওয়ানডে ক্যাপ্টেন জেসন হোল্ডার। যা ক্যারিবীয় দলকে করেছে আত্মবিশ্বাসী। গ্রেনাডায় আজ থেকে শুরু হওয়া দ্বিতীয় টেস্টে তাই দারুণ উজ্জীবিত দিনেশ রামদিনের দল। অন্যদিকে শিক্ষাটা কাজে লাগিয়ে এই ম্যাচ জিতেই সিরিজে এগিয়ে যেতে চায় সফরকারীরা। কুকের সমরে যোগ হচ্ছে মঈন আলির মতো অস্ত্র। ইনজুরি কাটিয়ে ফিরেছেন ‘সেনসেশনাল’ অলরাউন্ডার। ‘সত্যি বলতে, এটা দারুণ অভিজ্ঞতা। সিরিজে আমরা মোটেই ফেবারিট নই। এক ঝাঁক তরুণ ক্রিকেটার নিয়ে এ্যান্টিগা টেস্টে যেভাবে লড়াই করেছি, সেটি আমাদের উজ্জীবিত করছে। দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট হাতে হোল্ডার ছিল অসাধারণ। তবে ইংল্যান্ডের মতো শীর্ষ দলের বিপক্ষে সফল হতে টপঅর্ডারে আরও ভাল ব্যাটিং করতে হবে। বোলারদেরও উন্নতির জায়গা রয়েছে। স্পিনে সুলায়মান বেন ভাল করেনি, কন্ডিশনের বিচারে এই ম্যাচে তাই পরিবর্তন আসতে পারে। সর্বোপরি ভাল করার তীব্র ইচ্ছাটাই আমাদের বড় শক্তি।’ বলেন টেস্ট অধিনায়ক রামদিন। এ্যান্টিগায় প্রথম ইনিংসে ৩৯৯ রানে অলআউট হওয়া সফরকারী ইংল্যান্ড ৭ উইকেটে ৩৩৩ রানে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা করে। জবাবে প্রথম ইনিংসে ২৯৫Ñএ গুটিয়ে যাওয়া ক্যারিবীয়রা দ্বিতীয় ইনিংসে ৭ উইকেটে ৩৫০ রান করে ইংলিশদের মুখের গ্রাস কেড়ে নেয়। আট নম্বরে নেমে ১৪৯ বলে অপরাজিত ১০৩ রানের দুরন্ত ইনিংস খেলে ও বল হাতে ৪ উইকেট (২+২) নিয়ে ম্যাচসেরা হোল্ডার। প্রথম ইনিংসে অপরাজিত ১১২ রান করে তরুণ জার্মেইন ব্ল্যাকউড। দুই ইনিংসে তিন পেসার জেরমো টেইলর, কেমার রোচ ও হোল্ডার মিলে ১২ উইকেট তুলে নেয়া কম কৃতিত্বের নয়। অবশ্য দীর্ঘদিন পর সুযোগটা কাজে লাগাতে পারেননি স্পিনার বেন। দ্বিতীয় টেস্টের দল থেকে তাই বাদ পড়েছেন তিনি। নেয়া হয়েছে ডানহাতি মিডিয়াম পেসার শ্যানন গ্যাব্রিয়েলকে। গ্রেনাডায় চার পেসার নিয়ে খেললে সুযোগ হবে তার অথবা বিশেষজ্ঞ স্পিনার থাকলে জায়গা হবে দেবেন্দ্র বিশুর।

ড্র ম্যাচ থেকে ইতিবাচক রসদ নেয়ার সুযোগ থাকছে ইংলিশদেরও। ইয়ান বেলের সেঞ্চুরিতে (১৪৩) প্রথম ইনিংসে বড় সংগ্রহ, অফ-ফর্ম কাটিয়ে জ্বলে ওঠা গ্যারি ব্যাল্যান্সের ১২২ রানের সৌজন্যে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা, শততম টেস্টে দেশের হয়ে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারের ইতিহাস গড়া পেসার জেমস এ্যান্ডরসন (৭৮৪)Ñ সব মিলিয়ে কুকের দল ভালই করছিল। এক হোল্ডারই সব এলোমেলো করে দিয়েছেন! আরও ভাল খেলে গ্রেনাডায় জিততে চান ইংলিশ সেনাপতি। ‘সারা ম্যাচেই আমরা ভাল খেলেছি। ছোটোখাটো দু-একটি ভুলের খেসারত দিতে হয়েছে। এ থেকে শিক্ষা নিয়ে এখানে আরও ভাল করতে চাই। লক্ষ্য একটাই জয় নিয়ে সিরিজে এগিয়ে যাওয়া।’

মঈন ফেরায় সফরকারীদের ব্যটিং-বোলিং দুই বিভাগেই শক্তি বাড়বে। দলটির সময়ের অন্যতম সফল অলরাউন্ডার কদিন আগেই ক্রিকেটের ‘বাইবেল’ খ্যাত উইজডেন এ্যালামনকের প্রচ্ছদের জায়গা করে নিয়েছেন।

বাংলাদেশের নৈপুণ্যে মুগ্ধ মিয়াদাদ

লজ্জার হারে পাকিস্তান জুড়ে হতাশা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ প্রথম ওয়ানডেতে ধরাশায়ী হওয়ার পরই ইনজামাম-উল হক বলেছিলেন, পাকিস্তান সিরিজ হারলেও খুব বেশি অবাক হবেন না তিনি! এটা যে কতটা হতাশার বহির্প্রকাশ ক্রিকেটের সত্যিকারের অনুরাগী তা বুঝবেন। এবার বাংলাদেশের কাছে টানা দুই হারে এক ম্যাচ বাকি থাকতেই ওয়ানডে সিরিজ খোয়ানোর লজ্জায় ডুবেছে পাকিরা। ইনজামামের মতো হতাশার অনলে জ্বলছেন জাভেদ মিয়াদাদ, ওয়াসিম বারি, রশিদ লতিফের মতো সাবেক তারকা। পাশাপাশি টাইগার ক্রিকেটের প্রশংসাও করেছেন তারা।

‘বাংলাদেশের কাছে এভাবে সিরিজ হার পাকিস্তান ক্রিকেটের জন্য সবচেয়ে বড় লজ্জা। এখনই যদি কার্যকর পদক্ষেপ না নেয়া হয়, তবে একদিন আমাদের ধ্বংসের দিকে যেতে হবে।’ বলেন কিংবদন্তি মিয়াদাদ। পাশাপাশি বাংলাদেশের খেলা দেখে মুগ্ধ সাবেক পাকিস্তান অধিনায়কের মন্তব্য, ‘যেমন ভাবা হতো বাংলাদেশ এখন আর তেমন নেই। আমি মনে করে ওরা এখন যে কোন দলকে হারিয়ে অঘটন ঘটাতে পারে। প্রতিদিনই উন্নতি করছে।’ ২০০২ সালে বাংলাদেশে কিছুদিনের জন্য পরামর্শক হিসেবে কাজ করেছেন। এ নিয়ে এখন গর্ব হচ্ছে ৫৮ বছর বয়সী কিংবদন্তির। ‘বাংলাদেশে কয়েকদিন ওদের কোচিং করিয়েছিলাম। ওরা শর্টপিচ ডেলিভারিতে খুব দুর্বল ছিল, সেই বেসিকগুলো নিয়ে অবিরাম পরিশ্রম করেছে। এখন তারা দিন দিন উন্নতির দিকে যাচ্ছে।’

সাবেক উইকেটরক্ষক ও নির্বাচক ওয়াসিম বারি অবশ্য পাকিস্তানকে ধুয়ে দিয়েছেন। বলেছেন, ‘পাকিস্তান দলের কৌশল বলে কিচ্ছু নেই, নেই কোন পরিকল্পনা। এ কারণেই এই লজ্জা। বিশ্বকাপে ভাল খেলার ধারাটা ধরে রেখে বাংলাদেশ যেখানে এগিয়ে যাচ্ছে, সেখানে আমরা পেছনে হাঁটছি। পাকিস্তানের ক্রিকেট পা এখন তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে।’ আরেক সাবেক রশিদ লতিফ বলেন, ‘আমরা আসলে কি চাই তা নিজেরাই জানি না। গত পাঁচ বছরে ৯০ ক্রিকেটারকে খেলানো হয়েছে, পৃথিবীতে এমন নজির কম। ওপেনিংয়ে ১৯ জনকে দিয়ে চেষ্টা করা হয়েছে। কাউকেই থিতু হতে দেয়া হয়নি।’

দীর্ঘ ১৬ বছর পর প্রথম ম্যাচে হারের পরই ইনজামাম বলেছিলেন ‘প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ বিশ্বে ওয়ানডেতে জয়-পরাজয় থাকবে। তাই বলে এভাবে? বাংলাদেশের কাছে হারের ধরনই বলে দেয় পাকিস্তানের ক্রিকেট কোন পথে যাচ্ছে! গত ১৬ বছরে বাংলাদেশ যেখানে অনেক উন্নতি করেছে, সেখানে আমরা হাঁটছি উল্টো পথে। সত্যি বলতে, পাকিস্তান ক্রিকেটের এই অবস্থা দেখে উদ্বিগ্ন না হয়ে পারছি না।’ পাকিস্তানের জনপ্রিয় সংবাদ মাধ্যম ডন-এ ছাপা হওয়া পরাজয়ের রিপোর্টের কমেন্টসে জসিম হায়দার নামের একজন লিখেছেন, ‘২৪০ রান তাড়ায় বাংলাদেশ এত সহজে অতিক্রম করল, মনে হচ্ছে আরও এক-দেড় শ’ রান বেশি থাকলেও সেটি তাদের জন্য কঠিন হতো না! তামিম-মুশফিকদের কাছে আজহারদের ব্যাটিং শেখা উচিত।’

আরেক পাকিস্তানী দানিয়েলের মন্তব্য, ‘প্রথম হারটাকে অঘটনই ভেবেছিলাম। কিন্তু দ্বিতীয় ম্যাচেই এমন লজ্জার পর বলব, বাংলাদেশ আসলেই যোগ্যতর দল হিসেবে সিরিজ জিতেছে।’

মাঠেই মৃত্যু বাঙালী ক্রিকেটারের