১৮ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

শেরপুরে আদালত কক্ষ থেকে আসামি গ্রেফতার


নিজস্ব সংবাদদাতা, শেরপুর, ১৯ এপ্রিল ॥ জামিনের জন্য স্বেচ্ছায় আত্মসমর্পণকারী এক আসামিকে খোদ আদালত থেকেই গ্রেফতার করে নিয়ে গেছে পুলিশ। রবিবার সকালে ওই ঘটনাটি ঘটেছে শেরপুর চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে। ওই ঘটনায় আদালত প্রাঙ্গণে ব্যাপক তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

জানা যায়, শেরপুর শহরের ডাক্তার-অধ্যাপক দম্পতির এক কলেজপড়ুয়া কন্যাকে অপহরণ ও সহায়তার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় রবিবার সকালে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে স্বেচ্ছায় আত্মসমর্পণ করেন ওই মামলার মূল আসামি, স্থানীয় নবীনগর এলাকার কলেজছাত্র জিহানের বাবা হানিফ (৪৫) ও জিহানের মা বিনা (৪৩)। সকাল সাড়ে ১০টায় আদালতের বিচারক এজলাসে উঠার আগে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) মাহফুজার রহমান ও এসআই বন্দে আলীর নেতৃত্বে একদল পুলিশ হানা দেয় ওই আদালত কক্ষেই। এক পর্যায়ে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ভবনের দ্বিতলের ওই কক্ষ থেকে আইনজীবী, আইনজীবী সহকারী ও আদালতের স্টাফদের সামনেই হানিফকে টেনে-হিঁচড়ে গ্রেফতার করে নিয়ে যায় পুলিশ। ওই ঘটনা জানাজানি হয়ে পড়লে আদালত প্রাঙ্গণে ব্যাপক তোলপাড় সৃষ্টি হয়।

পরে হাজির হওয়া ২ আসামির মধ্যে কেবল দুগ্ধপোষ্য শিশু সন্তানসহ আসামি বিনার উপস্থিতিতে মামলার নথিটি শুনানির জন্য উপস্থাপন হলে আইনজীবী সমিতির সভাপতি সিরাজুল ইসলাম, সাবেক সভাপতি নারায়ণ চন্দ্র হোড়, সাধারণ সম্পাদক আবুল মানসুর স্বপন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোখলেসুর রহমান আকন্দ ও রফিকুল ইসলাম আধারসহ প্রায় সকল আইনজীবী সমস্বরে দাঁড়িয়ে হাজির হওয়া আসামিকে আদালত কক্ষ থেকে গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়ার বিষয়ে বিস্ময় প্রকাশ করেন।