২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

পাক ক্রিকেটের ভবিষ্যত নিয়ে শঙ্কিত ওয়াকার!


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ পাকিস্তান ক্রিকেট দলের বিশ্বকাপ মিশন শেষ হয়ে গেছে। এবার শেষ মুহূর্তে গ্রুপ পর্ব উতরে কোয়ার্টার ফাইনালে উঠেছিল পাকরা। কিন্তু সেখানে অস্ট্রেলিয়ার কাছে পাত্তাই পায়নি তারা। এসবের পেছনে গত কয়েক বছর ধরে পাকিস্তানের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট না হওয়াকেই কারণ হিসেবে দেখছেন জাতীয় দলের কোচ ওয়াকার ইউনুস। তিনি শঙ্কা জানিয়ে দেশের ক্রিকেট কর্তৃপক্ষদের সতর্ক করে দিয়েছেন এভাবে চলতে থাকলে পাক ক্রিকেট অচিরেই ধ্বংস হয়ে যেতে পারে।

২০০৯ সাল থেকে পাকিস্তান সফরে আসেনি কোন জাতীয় ক্রিকেট দল। সে বছর মার্চে পাকিস্তান সফররত শ্রীলঙ্কা দলের ওপর জঙ্গী হামলা হয়। সফরের মাঝখানে দেশে ফিরে যায় লঙ্কান ক্রিকেট দল। এরপর আর কোন দলই পাকিস্তানে আসেনি। ঘরোয়া সিরিজগুলো আরব আমিরাতের মাটিতেই আয়োজন করছে তখন থেকে পাকরা। কারণ রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতা কমেনি এরপর থেকে দেশটিতে। এ বিষয়টি নিয়ে এখন খুব ভালভাবে চিন্তার প্রয়োজন রয়েছে বলে মনে করেন পাক কোচ ওয়াকার। তিনি বলেন, ‘সবচেয়ে বড় আঘাত আমাদের জন্য এটাই যে এখন আমরা কোন আন্তর্জাতিক ম্যাচ আয়োজন করতে পারছি না। আমি আশঙ্কা করছি পাকিস্তানে ক্রিকেটটা মরে যেতে পারে। কারণ জুনিয়র পর্যায়ে আমাদের মেধাবী ক্রিকেটারের স্বল্পতা তৈরি হচ্ছে এবং বাচ্চাদের ক্রিকেটের প্রতি মনোযোগী করে তোলা খুবই কঠিন হয়ে পড়ছে। এটা খুব জরুরী বিষয় নতুন প্রজন্ম তৈরি করার জন্য। আমাদের অবশ্যই দেশে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরিয়ে আনতে হবে। সরকারকে অবশ্যই এ বিষয়ে জরুরী পদক্ষেপ নিয়ে এগিয়ে আসতে হবে।’

তবে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) ও পাক সরকার যথাসাধ্য প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে দেশে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরিয়ে আনার জন্য। শেষ পর্যন্ত গত বছর কেনিয়া জাতীয় দলকে ওয়ানডে সিরিজ খেলানোর জন্য দেশে আনতে সক্ষম হয়েছিল। বর্তমানে জিম্বাবুইয়ের সঙ্গে জোর আলোচনা চলছে আগামী মে মাসে পাকিস্তান সফরে রাজি করাতে। ওয়াকার মনে করেন অস্ট্রেলিয়ার কাছে যেভাবে হেরে দল বিদায় নিয়েছে এটাই প্রমাণ করে এখন অনেক কঠোর পরিশ্রম করতে হবে দেশের ক্রিকেট অবকাঠামো ঢেলে সাজাতে হলে। ওয়াকার বলেন, ‘আমরা যদি পাকিস্তান ক্রিকেটকে বাঁচাতে চাই তাহলে ঘরোয়া ক্রিকেটের মান আরও উঁচুতে নিয়ে যেতে হবে। কারণ বিশ্বকাপের সঙ্গে অন্য যে কোন পর্যায়ের ক্রিকেটের বৈশিষ্ট্যে বিশাল তফাত রয়েছে। আমরা অন্য যে কোন দলের চেয়ে সেদিক থেকে অনেক পিছিয়ে গেছি।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: