২৩ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

কক্সবাজারে ফের খুলে গেছে রাবার ড্যাম


স্টাফ রিপোর্টার, কক্সবাজার ॥ চকরিয়ায় মেরামতের চারমাসের মাথায় সামুদ্রিক জোয়ারের প্রচ- প্রভাবে আবারও জয়েন্ট খুলে গেছে মাতামুহুরী নদীর বাঘগুজারা পয়েন্টের ড্যামের রাবার। রবিবার ভোরে বরইতলী-কোনাখালী এলাকায় স্থাপিত ওই রাবার ড্যামে ঘটে এ ঘটনা। এ অবস্থার প্রেক্ষিতে মাতামুহুরী নদীর নীচের অংশ হয়ে উজানে সামুদ্রিক লবণ পানি ঢুকে পড়ায় বর্তমানে লবণ পানিতে সয়লাভ হয়ে পড়ছে মাতামুহুরী নদী। স্থানীয় চাষীরা জানিয়েছেন, ড্যামের রাবার খুলে গিয়ে লবণ পানি ঢুকে পড়ায় মাতামুহুরী নদীতে মিঠাপানির উৎস নষ্ট হয়ে গেছে। ফলে চলতি মৌসুমে চকরিয়া ও পেকুয়া উপজেলায় সেচ সঙ্কট দেখা দেয়ায় কৃষকদের রোপণ করা অন্তত ৬০ হাজার একর বোরো চাষ হুমকির মুখে পড়ছে। ড্যামের রাবার খুলে যাওয়ার খবর পেয়ে রবিবার সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন পানি উন্নয়ন বোর্ড কক্সবাজার সার্কেলের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী (এসি) আজিজ মোহাম্মদ চৌধুরী, কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পদক সালাহ উদ্দিন আহমদ সিআইপি, চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জাফর আলম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাহেদুল ইসলাম, কক্সবাজার পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী মোফাজ্জল হোসেন, চকরিয়া শাখা প্রকৌশলী মোহাম্মদ আলী, বরইতলী ইউপি চেয়ারম্যান এটিএম জিয়াউদ্দিন চৌধুরী ও কোনাখালী ইউপি চেয়ারম্যান দিদারুল হক সিকদার।

জানা গেছে, কক্সবাজার পানি উন্নয়ন বোর্ডের অর্থায়নে প্রায় ৩২ কোটি টাকা ব্যয়ে ওয়েস্টান ইঞ্জিনিয়ারিং নামের একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান বিগত ২০০৫-০৬ অর্থবছরে চকরিয়া মাতামুহুরী নদীর বাঘগুজারা পয়েন্টে রাবার ড্যামটির নির্মাণ কাজ শুরু করে। ২০১২-১৩ অর্থবছরে ড্যামটির নির্মাণ কাজ শেষ হয়।

বিষয়টি প্রসঙ্গে পানি উন্নয়ন বোর্ড কক্সবাজার সার্কেলের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী আজিজ মোহাম্মদ চৌধুরী বলেন, শনিবার রাতে জোয়ারে লবণাক্ত পানির চাপে বাঘগুজারার রাবার ড্যামের ৪টি ব্যাগের মধ্যে একটি ব্যাগ ছিঁড়ে গেছে। রবিবার সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বিষয়টি পানি উন্নয়ন বোর্ডের উর্ধতন মহলে অবহিত এবং মোরামতের জন্য যান্ত্রিক বিভাগের প্রকৌশলী পাঠাতে অনুরোধ করা হয়েছে। আজ সোমবার প্রকৌশলীরা এসে পৌঁছাবেন।