২২ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ইরান সম্পর্ক জোরদার করতে চায়


স্টাফ রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক জোরদার করতে চায় ইরান। দুই দেশের মধ্যে আগামীতে সম্পর্ক আরও গভীর হবে বলে আশা প্রকাশ করেছে দেশটি। রবিবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলীর সঙ্গে এক বৈঠকে ইরানের ঢাকায় নবনিযুক্ত রাষ্ট্রদূত আব্বাস ভাইঝি দেহনাভি এই আশাবাদ প্রকাশ করেন। এদিকে নারী বৈষম্য কমিয়ে আনার জন্য চলতি বছর উইম্যান ইন পার্লামেন্ট গ্লোবাল ফোরামের (ডব্লিউআইপি) পুরস্কার পাচ্ছে বাংলাদেশ। ডব্লিউআইপির এই পুরস্কার গ্রহণ ও এই সংস্থার বার্ষিক সম্মেলনে যোগ দিতে রবিবার ইথিওপিয়ায় গেছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্রে এ তথ্য জানা যায়।

বৈঠকে বাংলাদেশে নবনিযুক্ত ইরানী রাষ্ট্রদূত আব্বাস ভাইঝি দেহনাভি বলেন, বাংলাদেশী ও ইরানীরা পরস্পর ভাই-ভাই। দুই দেশের মধ্যে বহুদিনের ভ্রাতৃত্বমূলক সম্পর্ক রয়েছে। তাই বাংলাদেশের আরও বেশি উন্নতি দেখতে চায় ইরান। তিনি আরও বলেন, ইরান বাংলাদেশের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক জোরদার করতে চায়।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী ইরানের নতুন রাষ্ট্রদূতকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, ইরান এবং বাংলাদেশের মধ্যে কূটনৈতিক ও অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিরাজ করছে। সেই সম্পর্ক আরও গতিশীল করতে দুটি দেশ একসঙ্গে কাজ করে যাচ্ছে। এ সময় মাহমুদ আলী বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ইরানী জনগণকে শুভ কামনা পৌঁছে দেয়ার জন্য আব্বাস ভাইঝিকে আহ্বান জানান।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ইথিওপিয়ায় গেছেন ॥ তিন দিনের সফরে রবিবার ইথিওপিয়ার উদ্দেশে ঢাকা ছেড়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। তিনি তিন সদস্যের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। আজ সোমবার আফ্রিকান ইউনিয়নের প্রধান কার্যালয়ে নেলসন ম্যান্ডেলা হলে অনুষ্ঠিতব্য ‘উইম্যান ইন পার্লামেন্ট গ্লোবাল ফোরাম’ (ডব্লিউআইপি) বার্ষিক সম্মেলনে যোগ দেবেন। রবিবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, সেখানে তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে ডব্লিউআইপি পুরস্কার গ্রহণ করবেন। নারী বৈষম্য কমিয়ে আনার জন্য বাংলাদেশকে ডব্লিউআইপি চলতি বছর এই পুরস্কার দেয়ার জন্য মনোনীত করেছে। আগামী বৃহস্পতিবার দেশে ফেরার কথা রয়েছে শাহরিয়ার আলমের।