২৩ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

সোলার বিমান বাংলাদেশের আকাশে উড়বে আজ


স্টাফ রিপোর্টার ॥ বিশ্বের প্রথম সোলার বিমান আজ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের আকাশের ওপর দিয়ে উড়বে। বিমানটি ভারত থেকে বাংলাদেশের আকাশের ওপর দিয়ে মিয়ানমারের উদ্দেশে যাত্রা করবে। সুইজারল্যান্ড নির্মিত এই সোলার বিমানটির নাম ‘সোলার ইমপালস-টু’। বিমানটি ইতোমধ্যেই ওমান থেকে ভারতে এসে পৌঁছেছে। বুধবার ঢাকার সুইজারল্যান্ডের দূতাবাস থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সুইস দূতাবাস জানিয়েছে, সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবি থেকে গত ৯ মার্চ সোলার বিমানটি যাত্রা শুরু করেছে। আবুধাবি থেকে বিমানটি ওমানের রাজধানী মাসকটে আসে। সেখান থেকে ভারতে পৌঁছে বিমানটি। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের ওপর দিয়ে বিমানটি মিয়ানমারের উদ্দেশে যাত্রা করবে। মিয়ানমার থেকে চীনে যাত্রা করবে বিমানটি। এরপর সোলার বিমান মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, দক্ষিণ ইউরোপ ও উত্তর আফ্রিকায় যাত্রা করবে।

আগামী পাঁচ মাসে বিমানটি ৩৫ হাজার কিলোমিটার পথ পাড়ি দেবে। এর মধ্যে এক মহাদেশ থেকে আরেক মহাদেশ, প্রশান্ত ও আটলান্টিক মহাসাগরও অতিক্রম করবে বিমানটি। বিমানটি বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে যাত্রাবিরতি করবে। এ সময় বিশ্রামের পাশাপাশি বিমানটির রক্ষণাবেক্ষণের কাজও চলবে। এ ছাড়াও পরিবেশবান্ধব এ প্রযুক্তির প্রচার চালানোর কাজও চলবে।

সোলার বিমানে দুই জন পাইলট রয়েছেন। একজন আন্দ্রে বোর্সবার্গ। অপরজন বার্ট্রান্ড পিকার্ড। আবুধাবি থেকে যাত্রা শুরুর আগে পাইলট আন্দ্রে বোর্সবার্গ বলেছেন, আমাদের এ বিমানটি বিশেষ ধরনের এবং এটি আমাদের মহাসাগর পাড়ি দিতে সহায়তা করবে।

সূত্র জানায়, বিমানের পিঠের ওপর রয়েছে ৭২ মিটার টানা লম্বা ডানা। তার ওপর বসানো ১৭ হাজার ২৪৮টি সোলার সেল বা সৌরকোষ। যারা শুষে নিতে পারে সূর্যের শক্তি। আর সেই শক্তিকে রসদ করেই পাড়ি দেবে বিমান। দিনের বেলায় যে সৌরশক্তি জমা হবে, তাতে রাতেও উড়বে বিমানটি। বিমানের সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ১৪০ কিলোমিটার।

সুইজারল্যান্ড সরকার জানিয়েছে, সোলার বিমান তৈরির আসল উদ্দেশ্য জীবাশ্ম জ্বালানির ওপর নির্ভরতা কাটিয়ে দূষণহীন পুনর্ব্যবহারযোগ্য প্রযুক্তির ব্যবহার। সে কারণেই এই বিমানটি তৈরি করা হয়েছে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: