২৩ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই ঘন্টায়  
Login   Register        
ADS

১৪ পদে ৯টিতে বিএনপি-জামায়াত, ৫টিতে আওয়ামী লীগ জয়ী


১৪ পদে ৯টিতে বিএনপি-জামায়াত, ৫টিতে আওয়ামী লীগ জয়ী

স্টাফ রিপোর্টার ॥ সুপ্রীমকোর্ট আইনজীবী সমিতির ২০১৫-১৬ মেয়াদের নির্বাচনের সভাপতি পদে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হলেও অবশেষে জয় লাভ করেছে বিএনপি-জামায়াত সমর্থক নীল প্যানেল। সভাপতি ও সম্পাদকসহ ৯ পদে তারা জয় লাভ করেছে। এছাড়া সরকার সমর্থক সাদা প্যানেল একটি সভ-সভাপতি ও একটি সহ সম্পাদকসহ পেয়েছে ৫টি পদ।

আনুষ্ঠানিকভাবে মঙ্গলবার সকালে এ ফলাফল ঘোষণা করা হয়। বিএনপি-জামায়াত সমর্থিত প্যানেলের সভাপতি প্রার্থী খন্দকার মাহবুব হোসেন ১৭৫০ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ সমর্থিত সম্মিলিত আইনজীবী পরিষদের (সাদা প্যানেল) ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন পেয়েছেন ১৫৮৭ ভোট।

এ ছাড়া সম্পাদক পদে নীল প্যানেলের ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন ১৮৮০ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সাদা প্যানেলের মোমতাজ উদ্দিন মেহেদী পেয়েছেন ১৪৭৭ ভোট।

দুটি সহ-সভাপতি পদের মধ্যে সাদা প্যানেলের আবুল খায়ের এবং নীল প্যানেলের এএসএম মোক্তার কবির খান বিজয়ী হয়েছেন। সহ-সম্পাদক দুটি পদে সাদা প্যানেলের মো. দেলোয়ার মোস্তফা চৌধুরী (মধু) এবং নীল প্যানেলের মাজেদুল ইসলাম পাটওয়ারি উজ্জ্বল এবং কোষাধ্যক্ষ একটি পদে নীল প্যানেলের শওকত আরা বেগম দুলালী নির্বাচিত হয়েছেন।

এ ছাড়া ৭টি সদস্য পদের মধ্যে বিএনপিপন্থী নিল প্যানেল পেয়েছে চারটি। বাকি তিনটিতে জয়ী হয়েছে সাদা প্যানেল। সর্বমোট নীল প্যানেল ৯টি এবং সাদা প্যানেল ৫টি পদে জয় লাভ করে।

এর আগে সোমবার বিকেল পাঁচটায় দুই দিনব্যাপী ভোটগ্রহণ সমাপ্ত হয়। পরে রাত দশটা থেকে ভোট গণনা শুরু হয়। গত রবি ও সোমবার দুই দিনই সকাল দশটা থেকে মাঝে এক ঘণ্টা বিরতি দিয়ে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ চলে।

সুপ্রীমকোর্ট আইনজীবী সমিতির নির্বাচন উপ-কমিটির আহ্বায়ক এ্যাডভোকেট হারুনুর রশিদ জানান, এবারের নির্বাচনে ভোটার ছিলেন সমিতির ৪ হাজার ৩শ’ ৫৫ সদস্য। এরমধ্যে ৩ হাজার ৫২৯ ভোটারই ভোট দিয়েছেন। এ নির্বাচনে সরকার সমর্থক সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ ও ২০ দলীয় জোট সমর্থক জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য পরিষদ প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। ১৪টি পদের বিপরীতে দুই প্যানেলের ২৮ জন প্রার্থী হয়েছেন। এছাড়াও প্যানেলের বাইরে সভাপতি পদে একজন ও সম্পাদক পদে একজন করে প্রার্থী রয়েছেন।