২১ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৭ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

আইএস জঙ্গীরা যুক্তরাষ্ট্রে ঢুকতে পারে ॥ মার্কিন মেরিন কর্মকর্তা


ক্যারিবীয় অঞ্চল বা লাতিন আমেরিকার মধ্য দিয়ে ইসলামিক স্টেট (আইএস) জঙ্গীরা যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করতে পারে বলে দেশটির একজন শীর্ষ সামরিক কর্মকর্তা সতর্ক করে দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, এ অঞ্চলের প্রায় একশ’ লোক আইএসের সঙ্গে যোগ দিয়েছে। তারা যে কোন সময়ে এই রুট ব্যবহার করে যুক্তরাষ্ট্রে ঢুকে পড়তে পারে। খবর ওয়াশিংটন পোস্ট অনলাইনের।

মার্কিন সেনাবাহিনীর সাউদার্ন কমান্ডের প্রধান মেরিন জেনারেল জন এফ কেলি সিনেটের আর্মড ফোর্সেস কমিটিকে বলেছেন, এই নেটওয়ার্কটি এতই শক্তিশালী যে যে কোন সন্ত্রাসী অনায়াসে এটি অতিক্রম করতে পারে। যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের জন্য তাদের শুধু ভাড়াটা পরিশোধ করতে হবে। মধ্য ও দক্ষিণ আমেরিকা এবং ক্যারিবীয় অঞ্চলের তদারকির দায়িত্বে নিয়োজিত সাউদার্ন কমান্ডের প্রধান বলেন, এখানে কারও পাসপোর্টও ঠিকমতো চেক করা হয় না। এমনকি মেটাল ডিটেক্টরের মধ্য দিয়েও যে কেউ খুব সহজে চলে যেতে পারে। কেলি বলেন, ১৫ হাজারের বেশি বিদেশী যোদ্ধা মধ্যপ্রাচ্যে আইএসের পক্ষে যুদ্ধে যোগ দিয়েছে। তাদের প্রধান গন্তব্য সিরিয়া। যদিও ক্যারিবীয় ও লাতিন অঞ্চল থেকে খুব কম সংখ্যক যোদ্ধা আইএসের সঙ্গে যোগ দিয়েছে কিন্তু এই দেশগুলোর নজরদারি ব্যবস্থা খুবই দুর্বল। তারা যুদ্ধ শেষে দেশে ফিরে এলে তাদের শনাক্ত করার মতো পর্যাপ্ত জনবল বা কারিগরি দক্ষতা এসব দেশের নেই বলে কেলি মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, আমি ধারণা করি সিরিয়ায় থাকা অবস্থায় তারা চরমপন্থায় দীক্ষা নেয়ার পাশাপাশি অস্ত্র চালনা, শিরñেদ ও অন্যান্য বিষয়ে প্রশিক্ষিত হয়ে উঠবে। পরে তারা দেশে ফিরে নিরাপত্তার জন্য হুমকি হয়ে উঠতে পারে। ক্যারিবীয় দেশ জ্যামাইকা এবং ত্রিনিদাদ ও টোবাগো এছাড়া লাতিন আমেরিকান দেশ সুরিনাম ও ভেনিজুয়েলা থেকে আইএসে কিছু লোক যোগ দিয়েছে বলে কেলি জানিয়েছেন।

বোকো হারামের আনুগত্য গ্রহণ

নাইজিরিয়ার জঙ্গী গ্রুপ বোকোর হারামের আনুগত্য গ্রহণ করেছে আইএস। এর আগে শনিবার আইএসের প্রতি আনুগত্য ঘোষণা করেছিল বোকো হারাম। বোকো হারাম ২০০৯ সাল থেকে নাইজিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে ইসলামী শাসন প্রতিষ্ঠার জন্য সশস্ত্র লড়াই চালিয়ে আসছিল। লড়াই এখন নাইজিরিয়ার প্রতিবেশী দেশগুলোতেও ছড়িয়ে পড়েছে। বিবিসি জানিয়েছে, অডিও বার্তার মাধ্যমে আইএস বোকো হারামের আনুগত্য গ্রহণ করে নিয়েছে। তবে অডিও বার্তাটির সত্যতা যাচাই করা যায়নি।