১৯ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৭ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

দক্ষিণ আফ্রিকা বধের স্বপ্ন কোচ ওয়াকারের


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ টানা দুই হারে বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্ব থেকেই বাদ পড়ার শঙ্কায় পড়েছিল পাকিস্তান। তবে পরের দুই ম্যাচ জিতে ভালভাবেই ঘুরে দাঁড়িয়েছে ১৯৯২ বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়নরা। জিম্বাবুইয়ের বিরুদ্ধে ঘাম ঝরিয়ে জয়ের পর বুধবার সংযুক্ত আরব আমিরাতকে উড়িয়ে দিয়েছে মিসবাহ-উল-হকের দল। টানা দুই জয়ে এখন কোয়ার্টার ফাইনালের স্বপ্ন উজ্জ্বল হয়েছে পাকিস্তানের। এখনও তাদের দু’টি ম্যাচ বাকি। ৭ মার্চ শক্তিশালী দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে কঠিন লড়াইয়ে অবতীর্ণ হতে হবে পাকিদের। আরব আমিরাতকে হারানোর পর পাকিস্তান কোচ ওয়াকার ইউনুস বলেছেন, এখন তাদের প্রয়োজন দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারানো। ভারত ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচে যাচ্ছেতাইভাবে হেরেছিল পাকিস্তান। স্বাভাবিকভাবই কোণঠাসা অবস্থায় পড়েছিল দলটি। এমন অবস্থায় টানা দুই জয়ে দলের আত্মবিশ্বাস ফিরে এসেছে বলে মনে করেন ওয়াকার। সাবেক তারকা এই পেসার বলেন, আপনারা দেখে থাকবেন সবার মধ্যে মানসিকতার পরিবর্তন এসেছে। কারণ জয় সবসময়ই আত্মবিশ্বাসী করে তোলে। দুই জয়ে ছেলেরা এখন মনোবল ফিরে পেয়েছে। তবে আমি অনুভব করছি, দক্ষিণ আফ্রিকাকে আমাদের হারাতে হবে। ওই ম্যাচেই আমাদের আসল পরীক্ষা। দক্ষিণ আফ্রিকা আছে তুখোড় ফর্মে। দলটি টানা দুই ম্যাচে ৪০০’র বেশি রান করেছে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ৪০৮ রান করার পর আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে তারা করে ৪১১ রান। দু’টি ম্যাচেই প্রতিপক্ষ উড়ে যায়। এ প্রসঙ্গে ওয়াকার বলেন, অবশ্যই এটি মানসিকভাবে এগিয়ে রাখবে দক্ষিণ আফ্রিকাকে। তারা ভাল দল। তবে আমার দল সামর্থ্য অনুযায়ী খেলতে পারলে ওদের হারানো সম্ভব। তিনি আরও বলেন, আমরা জয় ছাড়া কিছুই ভাবছি না। তাদের অনেকবার হারিয়েছি আমরা। দু’দলের সর্বশেষ সিরিজই আত্মবিশ্বাস যোগাচ্ছে ওয়াকারকে। ২০১৩ সালে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ২-১ ব্যবধানে ওয়ানডে সিরিজে হারিয়েছিল পাকিস্তান। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ম্যাচটি যে তাদের জন্য বাঁচামরার, সেটাও জানেন ওয়াকার। সাবেক পাকিস্তান অধিনায়ক বলেন, ম্যাচটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই ম্যাচের ওপর অনেক কিছু নির্ভর করছে। দক্ষিণ আফ্রিকাও এখনও নকআউট পর্ব নিশ্চিত করতে পারেনি। তারাও জয় চাইবে। আমরাও জয় চাই। আমাদের প্রয়োজন বড় দলকে হারিয়ে আত্মবিশ্বাস আরও বাড়িয়ে নেয়া। জিম্বাবুইয়েকে হারানোর পর আরব আমিরাতকে সহজেই ১২৯ রানে হারায় পাকিস্তান। আহমেদ শেহজাদ, হারিস সোহেল ও অধিনায়ক মিসবাহ-উল হকের অর্ধশতকে ভর করে এবারের বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো তিন শ’ রানের সংগ্রহ গড়ে পাকিস্তান। তাদের দলীয় রান হয় ৬ উইকেটে ৩৩৯। এরপর ৩৪০ রানের জয়ের লক্ষ্যে নেমে আরব আমিরাত ৮ উইকেটে ২১০ রান করতে সক্ষম হয়। বর্তমানে পুল ‘বি’ তে চার ম্যাচে দুই জয় ও দুই হারে ৪ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার চার নম্বরে অবস্থান করছে পাকিস্তান।