২৩ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৪ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

ডেমরায় বাসের ধাক্কায় ভার্সিটি ছাত্র নিহত, অপহৃত শিশু উদ্ধার


স্টাফ রিপোর্টার ॥ রাজধানীর ডেমরা মহাসড়কে মিনিবাসের ধাক্কায় বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রসহ দু’জন নিহত হয়েছে। এদিকে খিলক্ষেতে অপহৃত দেড় বছরের শিশু ভাবনাকে উদ্ধার করেছে র‌্যাব। এ সময় মোঃ সাগর ইসলাম (৩০) নামে এক অপহরণকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সোমবার পুলিশ ও মেডিক্যাল সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, সোমবার দুপুরে ডেমরা থানাধীন দেইলা এলাকায় ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে মিনিবাসের ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী জোবায়ের হোসেন রাজন (২৪) ও মোরশেদ মজুমদার (২২) নামে দুই যুবকের মৃত্যু হয়েছে। নিহত রাজনের বাবার নাম মোফাজ্জল হোসেন। রাজন ইস্টওয়েস্ট ইউনিভার্সিটিতে বিবিএ পড়তেন। আর নিহত মোরেশেদের বাবার নাম গোলাম মোস্তফা। মোরশেদ কাপড়ের ব্যবসার সঙ্গে জড়িত ছিল। তারা ডেমরা বালুরমাঠ এলাকায় থাকত। নিহত মোরশেদ মজুমদারের ভাই জাহিদ মজুমদার জানান, সোমবার দুপুরে বন্ধু রাজনের সঙ্গে মোরশেদ বাসা থেকে বের হয়। পরে রাজনের মোটরসাইকেলে করে মোরশেদ ডেমরার মহাসড়ক দিয়ে যাচ্ছিলেন। ডেমরার দেইলা নামকস্থানে বেপরোয়া গতির একটি মিনিবাস তাদের মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেয়। এতে দু’জনই রাস্তায় ছিটকে পড়ে গুরুতর আহত হয়। পরে বিকেল ৩টার দিকে তাদের ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের জরুরী বিভাগে আনলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মোরশেদকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে রাজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ল্যাবএইড হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক বিকেল ৫টার দিকে তাকে মৃত ঘোষণা করেন। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, পথে তার মৃত্যু হয়েছে। ডেমরা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) পঙ্কজ চন্দ্র সরকার জানান, দুর্ঘটনায় রাজন ও মোরশেদ নামে দুই যুবকের মৃত্যু হয়েছে। ময়নাতদন্ত ছাড়াই তাদের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

অপহৃত শিশু উদ্ধার ॥ রবিবার গভীররাতে র‌্যাব-১ এর এএসপি মোঃ আকরামুল হাসানের নেতৃত্বে একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খিলক্ষেত থানাধীন খিলক্ষেত মধ্যপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে অপহৃত দেড় বছরের শিশু ভাবনা আক্তারকে উদ্ধার করে। এ সময় অপহরণকারী মোঃ সাগর ইসলাম ওরফে স্বপনকে (৩০) গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃত সাগরের বাবার নাম মোঃ ইউনুস খলিফা। গ্রামের বাড়ি পটুয়াখালী জেলায়। সে খিলক্ষেত মধ্যপাড়া এলাকায় থাকত। অপহৃত শিশুর বাবা বাচ্চু মিয়া জানান, ১১ জানুয়ারি তার মেয়ে ভাবনাকে ডেমরার বাসার সামনে থেকে অপহরণ করা হয়। পরে অপহরণকারীরা তার নিকট মোবাইলে ৭০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। পরে তিনি বিষয়টি র‌্যাব-১কে জানান। পরে র‌্যাব গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে অপহরণকারী সাগরকে খিলক্ষেত মধ্যপাড়ার বাসা থেকে গ্রেফতার করে অপহৃত ভাবনাকে উদ্ধার করে। গ্রেফতারকৃত সাগর র‌্যাবকে জানায়, শিশু ভাবনাকে অপহরণের পর থেকেই তার স্ত্রী কাছে ওই বাসায় ৬দিন আটকে রাখে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: