২১ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

মঙ্গা এখন জাদুঘরে


‘কার্তিকের মঙ্গা’ মানেই ধানখেতজুড়ে হলুদ ধান, অথচ ঘরে ঘরে চাল নেই, পেটে ভাত নেই, খাদ্যহীন দিবসরজনী, কোথাও কোন কাজ নেই। জীবিকার্জন বা রোজগারের উপায়ও নেই। অভাব, দারিদ্র্যের কশাঘাতে জর্জর জীবন। যেন কার্তিকের মঙ্গায় জীবন ডুবে যায় গঙ্গায়। একটু বাঁচার উপায় ক্রমশ দূরান্তে সরে যায়। যুগ-যুগান্তের চালচিত্রটা এমনই যে, মঙ্গা এসে কেড়ে নেয় জীবন-জীবিকা, সহায়-সম্পদ-সম্পত্তি। ক্ষুধা ও বাঁচার তাড়নায় নারীকে পতিতাবৃত্তিতে নামতে হতো। ১৯৭৮ সালে জেনারেল জিয়ার সামরিক শাসনকালে রংপুরে অনেক দুঃস্থ কিশোরী ও নারীকে পতিতার লাইসেন্স নিতে হয়েছিল। ঘটনা নিয়ে তোলপাড় হলেও মঙ্গা কাটেনি আর। অবশ্য জান্তা শাসকের রক্তচক্ষু উপেক্ষা করে সেসব সংবাদপত্রেও ছাপা হতো। একদা দারিদ্র্যপীড়িত দেশের উত্তর জনপদের অধিবাসীরা করুণ কষ্টকল্পিত মানবেতর জীবন কাটাত। মঙ্গা শেষ হতে না হতেই জাঁকিয়ে বসত মরণকামড় হানা ‘জার’ বা শীত। কর্মহীন তাদের জগতজুড়ে কনকনে ঠা-ার প্রকোপে প্রাণবায়ু যায় যায়। রোগ, শোক, মহামারী এসে ঘিরে ধরত। প্রচ- হাড় হিম করা উত্তরের হিমালয় থেকে বয়ে আসা কনকনে শীত বয়সীদের মৃত্যুর কোলে ঠেলে দিত। প্রতি বছর সংবাদপত্রজুড়ে থাকত শৈত্যপ্রবাহে মানুষের মৃত্যুর ঘটনা।

গত ছয় বছরে পরিস্থিতি ক্রমশ বদলে গেছে। মঙ্গাপীড়িত অঞ্চলে কাজের ক্ষেত্র তৈরি হয়েছে। কার্তিকে আর খাদ্যাভাব নেই। অভাব ও আকালের কশাঘাত থেকে মুক্ত হয়েছে উত্তর জনপদ। দারিদ্র্যরেখার নিচে নেই অবস্থান। দু’বেলা দু’মুঠো রোজগার আর কঠিনও নয়। শেখ হাসিনার নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি ছিল উত্তর জনপদ হতে মঙ্গা ও অভাব দূর করে মানুষকে বাঁচিয়ে রাখার ব্যবস্থা গ্রহণ। অর্ধাহারে-অনাহারে এই অঞ্চলের মানুষকে আর দিনাতিপাত করতে হয় না। মঙ্গাকে অতিক্রম করে এখন তারা দুর্ভিক্ষকে মোকাবেলা করেছে। কাজের খোঁজে দূর-দূরান্তে যেতে হয় না। শিশুসহ বয়স্কদেরও শীতে আক্রান্ত হতে হয় না। দারিদ্র্যপীড়িত উত্তর জনপদসহ সারাদেশের মানুষের ক্রয়-ক্ষমতা বেড়েছে অনেক। কাজের অভাবে হাত গুটিয়ে বসে থাকতে হয় না। অন্নবস্ত্র যোগান দেয়ার পাশাপাশি শীতের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগকে মোকাবেলায় তারা সিদ্ধহস্ত এখন। বিভিন্ন সংগঠন যে শীতবস্ত্র বিতরণ করে তা তাদের ঠাণ্ডার প্রকোপমুক্ত করেছে বলেই এবার শীতে রোগশোকও নেই। অসুখ নিয়ে হাসপাতালেও নেই রোগী। যুগ যুগ ধরে মঙ্গা ও শীতে কাবু জনপদকে রক্ষায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যে ব্যবস্থা নিয়েছেন তাঁর দু’দফা শাসনকালে তা যুগান্তকারী প্রচেষ্টা। মঙ্গাকে তিনি জাদুঘরে পাঠিয়ে দিয়েছেন বৈকি। ‘না খেয়ে মানুষ মারা যাবে না’ বলে যে দৃঢ়তর ঘোষণা তাঁর বাস্তবে তা পরিণত হওয়ায় দেশবাসী তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞ।