২২ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ইউএনএফপিএর অর্থায়নে বাস্তবায়ন হচ্ছে জিআইএস প্রকল্প


অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ ইউএনএফপিএর সহায়তায় বাস্তবায়িত হচ্ছে স্ট্রেনদেনিং ক্যাপাসিটি অব বিবিএস ইন পপুলেশন এ্যান্ড ডেমোগ্রাফিক ডাটা কালেকশন ইউজিং জিআইএস প্রকল্প। এর সফল বাস্তবায়নে আয়োজন করা হয়েছে তিন দিনের প্রশিক্ষণ কর্মসূচীর। রবিবার রাজধানীর আগারগাঁও এ অবস্থিত বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ভবন সম্মেলন কক্ষে রিপোর্ট রাইটিং বিষয়ে এ কর্মসূচীর উদ্বোধন করা হয়।

বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর উপ-মহাপরিচালক বাইতুল আমীন ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর মহাপরিচালক গোলাম মোস্তফা কামাল। বিশেষ অতিথি ছিলেন, পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব সফিকুল ইসলাম ও যুগ্ম সচিব আমিনুর বর চৌধুরী। বক্তব্য রাখেন স্ট্রেনদেনিং ক্যাপাসিটি অব বিবিএস ইন পপুলেশন এ্যান্ড ডেমোগ্রাফিক ডাটা কালেকশন ইউজিং জিআইএস প্রকল্পের পরিচালক জাহিদুল হক সরদার।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর মহাপরিচালক গোলাম মোস্তফা কামাল বলেছেন, প্রচুর প্রশিক্ষণ দেয়া হলেও কাক্সিক্ষত ফল পাওয়া যাচ্ছে না।

প্রত্যেক প্রকল্পে সবনি¤œ তিনটি করে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা থাকে। কিন্তু দেখা যাচ্ছে ৫ থেকে ৭ দিনের প্রশিক্ষণ দেয়া হলেও কোন বেনিফিট আসছে না। এ অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। যেকোন জরিপের প্রতিবেদন হতে হবে সাধারণ মানুষের কাছে সহজবোধ্য। এ প্রশিক্ষণের মাধ্যমে এ বিষয়ে জ্ঞান অর্জন সম্ভব হবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সফিকুল ইসলাম বলেন, পরিসংখ্যান ব্যুরোর প্রতিবেদনগুলো বাংলায় হওয়া দরকার। যাতে এটি সহজেই সাধারণ মানুষ বুঝতে পারে। প্রতিবেদন লেখার সময় সুন্দর করে গল্পের আকারে লিখতে হবে। আমিনুল বর চৌধুরী বলেন বর্তমানে প্রশিক্ষণের ওপর বিশেষ গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে। এর মাধ্যমে অর্জিত জ্ঞান শাণিত হবে। যার প্রতিফলন ঘটবে প্রতিবেদন তৈরির ক্ষেত্রে।

জাহিদুল হক সরদার বলেন, প্রতিবেদন সহজ সরল ও প্রাঞ্জল করতে এ প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। যারা প্রশিক্ষণে অংশ নিচ্ছেন তাদের জ্ঞানের পরিধি আরো বৃদ্ধি পাবে।

তিনি জানান, প্রশিক্ষণ কর্মসূচীতে পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগ, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো এবং বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান উইংয়ের কর্মকর্তারা অংশগ্রহণ করছেন।