২৩ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

পদ্মায় অসংখ্য চর


পদ্মায় অসংখ্য চর

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ শুষ্ক মৌসুম শুরুর সঙ্গে সঙ্গে রাজশাহীর পদ্মা নদী শুকিয়ে এখন চরভূমিতে পরিণত হয়েছে। বিস্তৃত পদ্মায় এখন অসংখ্য চর। রাজশাহী নগরী, চারঘাট, বাঘা, গোদাগাড়ীতে পদ্মা এবং চাঁপাইনবাবগঞ্জে মহানন্দা নদীতে একাধিক চর জেগে ওঠায় পানি কয়েক ভাগে বিভক্ত হয়ে পড়েছে। ফলে জীববৈচিত্র্য ও অর্থনৈতিক কার্যক্রম হুমকির মুখে পড়েছে।

জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে ১০ বছর ধরে বর্ষা মৌসুমে বরেন্দ্র অঞ্চলে বৃষ্টিপাত কম ও খরার প্রবণতা বৃদ্ধি পেয়েছে। সাময়িক পানি এলেও শুষ্ক মৌসুম শুরুর আগেই নদীর বেশিরভাগ অংশ পরিণত হচ্ছে চরে। এবারো তার ব্যতিক্রম হয়নি। বর্ষা মৌসুমে কিছুদিনের জন্য পদ্মা ও মহানন্দা নদীতে কানায় কানায় পানি থাকলেও শুষ্ক মৌসুমে নদীতে অসংখ্য চর সৃষ্টি হয়ে বালু ও মাটিতে নদী ভরাট হচ্ছে। নদীর মাঝপথ দিয়ে বিশাল চর জেগে ওঠায় নদীর পানির গতিপথ পাল্টিয়ে বহুভাগে বিভক্ত হয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এতে পদ্মা ও মহানন্দা নদী দিয়ে এখন আর নৌকা চলতে পারছে না। নৌকা চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। পদ্মা ও মহানন্দা নদীতে পানি কমে যাওয়ার কারণে মাছেরও সঙ্কট দেখা দেয়ায় ৫ শতাধিক জেলে বেকার হয়ে পড়েছে।

নদীতে কমসংখ্যক নৌকা চলাচলের কারণে গোদাগাড়ীর চরাঞ্চলের ৫০টি গ্রামের প্রায় দেড়লাখ লোক নদী পারাপার হতে গিয়ে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছে।

চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের মানিকচক গ্রামের কৃষক দুলাল হোসেন বলেন, চরাঞ্চলে উৎপাদিত কৃষিপণ্য বিক্রি করার জন্য উপজেলা সদরে যেতে হয়।