১৮ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

হবিগঞ্জে সোনার খনির সন্ধান!


রফিকুল হাসান চৌধুরী তুহিন, হবিগঞ্জ থেকে ॥ হবিগঞ্জের পল্লী শ্রীরামপুরের একটি হ্যাচারিতে গভীর নলকূপ বসানোর সময় স্বর্ণ খনির সন্ধান পাওয়ার দাবি করেছেন শেখ ইউসুফ আলী নামে এক ঠিকাদার। আর এ নিয়ে সংশ্লিস্ট এলাকায় শুরু হয়েছে তুমুল হৈ চৈ। তার বাড়ি জেলার চুনারুঘাট উপজেলাধীন দুবাড়িয়া গ্রামে। তবে এ দাবি সরেজমিন পরীক্ষা-নিরিক্ষা করে খতিয়ে দেখতে ইউসুফ জেলা প্রশাসক বরাবরে একটি আবেদন করলেও কোন কর্মকর্তা এখনও তাতে গুরুত্ব দেননি বলে অভিযোগ উঠেছে।

ওই ঠিকাদার মিডিয়াকে জানিয়েছেন, তিনি ১৯৬৪ সাল থেকে টিউবওয়েল এমনকি ডিপ-টিউবওয়েল বসানোর কাজ করছেন। এরই প্রেক্ষিতে সম্প্রতি শ্রীরামপুর গ্রামের বাসিন্দা তাহের আলীর হ্যাচারিতে একটি গভীর নলকূপ বসানোর কাজ শুরু করেন। কিন্তু প্রায় ৪শ’ ফুট গভীরে যাওয়ার পর তা আর সম্ভব হচ্ছিল না। দেখা যায়, মাটির নিচের এই স্তরটি পাথরের মতো শক্ত নয়। তবে সোনার মতো নরম। তার অভিজ্ঞতায় ধারণা করছেন, এখানে রয়েছে স্বর্ণের মজুত। আর এই স্থানটি পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য প্রয়োজন অত্যাধুনিক যন্ত্রপাতি এবং অন্তত ২০ লাখ টাকা। যার ফলে এ ব্যাপারে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে সরকারের সহযোগিতা চেয়েছেন সংশ্লিস্ট ঠিকাদার। অথচ এখনও প্রশাসন সাড়া না দেয়ায় সংশ্লিস্ট এলাকার বাসিন্দাদের মাঝে সৃষ্টি হয়েছে তীব্র ক্ষোভ। এ ব্যাপারে জেলা প্রশাসক মোঃ জয়নাল আবেদীনের বক্তব্য নেয়ার চেষ্টা করেও তা সম্ভব হয়নি।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: