২৪ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

বঙ্গবন্ধুকে তারেকের কটূক্তি


বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার ॥ জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে কটূক্তি করে ‘মিথ্যা বক্তব্য’ দেয়ার প্রতিবাদ জানিয়েছে ঢাবি ছাত্রলীগ। একই সঙ্গে তারেককে তার বক্তব্য প্রত্যাহার করে জাতির কাছে ক্ষমা চাওয়ার দাবি জানানো হয়েছে। যদি তা না করা হয় তবে খালেদা জিয়াকে কোন ধরনের সভা-সমাবেশ করতে না দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে সংগঠনটির নেতা-কর্মীরা। রবিবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে এক সমাবেশ থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়। এর আগে মধুর ক্যান্টিন থেকে একটি প্রতিবাদী মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি ক্যাম্পাসের বিভিন্ন স্থান ঘুরে সমাবেশস্থলে গিয়ে শেষ হয়।

সমাবেশে ছাত্রলীগের ঢাবি শাখার সভাপতি মেহেদি হাসান মোল্লার সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক ওমর শরিফের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় সভাপতি এইচ এম বদিউজ্জামান সোহাগ। উপস্থিত ছিলেন সহ-সভাপতি ইমাউল হক সরকার টিটু, জয়দেব নন্দি, যুগ্ম সম্পাদক শামসুল কবির রাহাত, শারমিন সুলতানা লিলি, দফতর সম্পাদক শেখ রাসেল, কেন্দ্রীয় সদস্য এনামুল হক প্রিন্স, ঢাবি সাংগঠনিক সম্পাদক আদিত্য নন্দিসহ বিভিন্ন হলের নেতাকর্মীরা।

এ সময় সোহাগ বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে তারেক যে ‘মিথ্যা বক্তব্য’ দিয়েছে তা অবিলম্বে প্রত্যাহার করে জাতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। তাকে (তারেক রহমান) বিএনপি থেকে বহিষ্কার করতে হবে। যদি তা না করা হয় তবে যেখানে তিনি (খালেদা) সমাবেশ করবেন সেখানেই ছাত্রলীগ সমাবেশ ডাকবে। তাকে প্রতিহত করা হবে।

উল্লেখ্য, গত ১৬ ডিসেম্বর মঙ্গলবার লন্ডনের এক আলোচনা সভায় তারেক জিয়া জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে ‘রাজাকার’ ও ‘পাকবন্ধু’ বলে বক্তব্য দেয়। এরপর থেকেই প্রতিবাদের ঝড় শুরু হয়।