২৩ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৪ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

পাকিস্তানের হারে সমতা, তৃতীয় ওয়ানডে আজ


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ পাঁচ ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে নিউজিল্যান্ডের কাছে ৪ উইকেটে হেরেছে পাকিস্তান। মূলত ব্যাটিং ব্যর্থতাই ডোবায় মিসবাহ-উল হকদের। শুক্রবার শারজায় আগে ব্যাট করে ২৫২ রানে অলআউট হয় পাকিরা। জবাবে ম্যাচের নায়ক কেন উইলিয়ামসনের দৃষ্টিনন্দন হাফ সেঞ্চুরিতে ৪ ওভার বাকি থাকতেই দারুণ জয়ে ১-১এ সমতা ফেরায় কিউইরা। একই ভেন্যুতে তৃতীয় ওয়ানডে অনুষ্ঠিত হবে আজ। তিন টেস্টের সিরিজ ১-১ ও দুই ম্যাচের টি২০ও অমীমাংসিত থাকে ১-১এ, এবার পিছিয়ে পড়েও ঘুরে দাঁড়াল নিউজিল্যান্ড। ফেবারিট পাকিস্তানের সঙ্গে সমান তালে লড়ছে বিশ্বকাপের সহআয়োজকরা। মরুর বুকে সত্যিই জমে উঠেছে পাকি-কিউই দ্বৈরথ। আজ কি তবে মিসবাহদের এগিয়ে যাওয়ার পালা?

ফেবারিট হলেও ‘আনপ্রেডিক্টেবল’ পাকিস্তানের বেলায় উত্তরটা সহজ নয়! দুবাইর প্রথম ম্যাচে প্রায় হারতে হারতে জিতেছে তারা। শহীদ আফ্রিদি ও হারিস সোহেলের অবিশ্বাস্য ব্যাটিংয়ে মান বাঁচিয়েছিল সেদিন। কিন্তু শুক্রবার আর শেষ রক্ষা হয়নি। নিয়মিত অধিনায়ক ব্রেন্ডন ম্যাককুলামের অনুপস্থিতিতে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়ে কিউইদের সমতায় ফেরান তরুণ উইলয়ামসন। টস জিতে ব্যাটিং নেয়া পাকিস্তান আড়াই শাতাধিক রানের স্কোর পায় মূলত মোহাম্মদ হাফিজের সৌজন্যে। অবৈধ এ্যাকশনের জন্য বোলিংয়ে আইসিসি কর্তৃক নিষিদ্ধ অলরাউন্ডারকে খেলানো হয় স্পেশাল ব্যাটসম্যান হিসেবে। সেটি পুষিয়ে দেন তিনি। ৯২ বলে ৪ চার ও ১ ছক্কায় সর্বোচ্চ ৭৬ রান করে আউট হন তিনি। এরপর দ্রুতই আহমেদ শেহাজদ (০), ইউনুস খানও (৬) ও আসাদ শফিককে (১) হারিয়ে চাপে পড়ে তারা। মাঝে একাধিক যৌথ প্রয়াস সত্ত্বেও বড় ইনিংসের অভাবে ফাইটিং স্কোর পায়নি পাকিরা।

অধিনায়ক মিসবাহ ৪৭, হারিস সোহাইল ৩৩, সরফরাজ আহমেদ ২৭ ও তারকা অলরাউন্ডার শহীদ আফ্রিদি ১ চার ও ৩ ছক্কায় ১৪ বলে ২৭ রান করে সাজঘরে ফেরেন। ৪৮.৩ ওভারে ২৫২ রানে গুটিয়ে যায় পাকিরা। ম্যাট হেনরি ৪, মিচেল ম্যাকক্লেনঘান ৩ ও এ্যাডম মিলনে নেন ২টি করে উইকেট। জবাবে ১৮ ওভারে দলীয় সংগ্রহে ১০৩ রান যোগ করে ম্যাচে নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করেন দুই নিউজিল্যান্ড ওপেনার। অষ্টম ওয়ানডেতে এ্যান্টনি ডেভিচিস প্রথম হাফ সেঞ্চুরি করে আউট হন ৫৮ রানে, ডিন ব্রাউনলি ৪৭। হারিস সোহাইলের চমৎকার বোলিংয়ে ১৬৭ রানে নিউজিল্যান্ডের ৫ উইকেট তুলে নিয়ে ম্যাচে ফেরে পাকিস্তান। চোট নিয়ে মাঠ ছাড়া মিসবাহর পরিবর্তে আফ্রিদির নেতৃত্বে তখন বেশ চনমনে মনে হচ্ছে পাকিদের। আফ্রিদি নিজেও ৪৭ রান দিয়ে তুলে নেন গুরুত্বপূূর্ণ ২ উইকেট।

কিন্তু একপ্রান্তে চমৎকার খেলে ম্যাচ বের করে নেন উইলিয়ামসন। ৯১ বলে ৭ চারের সাহায্যে ৭০ রানে দলের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন অধিনায়ক। ৫৬ ম্যাচে এটি তার ১২তম হাফ সেঞ্চুরি। পাকিস্তানের হয়ে হারিস সর্বোচ্চ ৩ উইকেট নেন।

স্কোর ॥ পাকিস্তান ২৫২/১০ (৪৮.৩ ওভার; হাফিজ ৭৬, মিসবাহ ৪৭, হারিস ৩৩, আফ্রিদি ২৭; হেনরি ৪/৪৫, ম্যাকক্লেনঘান ৩/৫৬, মিলনে ২/৫৩), নিউজিল্যান্ড ২৫৫/৬ (৪৬ ওভার; উইলিয়ামসন ৭০, ডেভিচিস ৫৮, ব্রাউনলি ৪৭, রনকি ৩৬; হারিস ৩/৪৮, আফ্রিদি ২/৪৭)

ফল ॥ নিউজ্যিল্যান্ড ৪ উইকেটে জয়ী।

ম্যাচসেরা ॥ উইলিয়ামসন (নিউজিল্যান্ড)।

সিরিজ ॥ পাঁচ ওয়ানডের সিরিজ ১-১এ চলমান।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: