২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

উপমহাদেশের সর্বোচ্চ ওয়াচ টাওয়ার নির্মাণ হচ্ছে চরফ্যাশনে


নিজস্ব সংবাদদাতা, চরফ্যাশন, ভোলা, ১৩ ডিসেম্বর ॥ ভোলার চরফ্যাশনে নির্মিত হচ্ছে উপমহাদেশের সর্বোচ্চ ওয়াচ টাওয়ার।

টাওয়ারটির উচ্চতা প্রায় ২১৫ ফুট। টাওয়ারটিতে লিফটের সংযোজন করা হয়েছে। থাকছে উচ্চ ক্ষমতার বাইনোকুলার, যাতে ১০০ বর্গকিলোমিটার এলাকার নানা কিছু দেখা যাবে অনায়াসে। স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে প্রায় ৭ কোটি টাকা ব্যয়ে ১৮ তলাবিশিষ্ট ওই দৃষ্টিনন্দন টাওয়ারটি পর্যটকদের দারুণভাবে আকর্ষণ করবে বলে আশা করা হচ্ছে। সে লক্ষ্যে ইতোমধ্যে চর কুকরিমুকরি, ঢালচরসহ আশপাশের বনাঞ্চলে ইকোপার্ক গড়ে তোলা হয়েছে। ওয়াচ টাওয়ারে দাঁড়ালেই পশ্চিমে তেঁতুলিয়া নদীর শান্ত জলধারা, পূর্বে মেঘনা নদীর উথাল-পাতাল ঢেউ, দক্ষিণে চর কুকরিমুকরিসহ বঙ্গোপসাগরের বিরাট অংশ নজরে আসবে। চরফ্যাশনের দক্ষিণে সাগর মোহনার বিচ্ছিন্ন দ্বীপ কুকরিমুকরি, ঢালচর, তারুয়া সৈকত প্রকৃতির এক অপার সৃষ্টি। কয়েক বছরে ওই স্পটগুলো ভ্রমণপিপাসুদের কাছে আকর্ষণীয় হয়ে উঠেছে। ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মানুষ আসছেন ওইসব এলাকায়। ম্যানগ্রোভ বনাঞ্চলে রয়েছে হরিণ, বানর, বন মোড়গসহ নানা বন্যপ্রাণী। কিন্তু পর্যটকদের আকর্ষণ করার মতো কোন স্থাপনা গড়ে ওঠেনি সেখানে। প্রাকৃতিকভাবে গড়ে ওঠা অপার সৌন্দর্যের পাশাপাশি আধুনিক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে পর্যটকদের কাছে আরও আকর্ষণীয় করে তুলতে চরফ্যাশনে নির্মিত হচ্ছে দৃষ্টিনন্দন এই টাওয়ারটি। ইতোমধ্যে নির্মাণাধীন টাওয়ারটি দেখার জন্য প্রতিদিন শত শত মানুষ ছুটে যাচ্ছেন।

পাবনায় ২২ বছর পর খাস জমি পাচ্ছে ১৩শ’ ভূমিহীন

নিজস্ব সংবাদদাতা, পাবনা, ১৩ ডিসেম্বর ॥ দীর্ঘ ২২ বছর আন্দোলন পর চাটমোহর উপজেলার এক হাজার তিন শ’ ভূমিহীন পরিবার অবশেষে খাস জমি পাচ্ছে। দীর্ঘকাল সংগ্রামের পর সরকার ভূমিহীনদের মাঝে খাস জমি বিতরণের প্রক্রিয়া চূড়ান্ত করায় ভূমিহীন পরিবারের মধ্যে শুরু হয়েছে আনন্দ-উল্লাস ।

চাটমোহর উপজেলা প্রশাসন জানিয়েছে, বিলকুড়ালিয়ার ৩শ’ ৭১ একর খাস জমি দীর্ঘকাল আান্দোলরত ভূমিহীনদের মাঝে স্থায়ী বন্দোবস্তের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। চাটমোহর ভূমি অফিসে কবুলিয়াত দলিল রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে এ খাস জমি ভূমিহীনদের মাঝে স্থায়ী বন্দোবস্তের প্রক্রিয়া উপজেলা প্রশাসন শুরু করেছে। চাটমোহর ভূমি অফিসে ভূমিহীনদের নাম রেজিস্ট্রেশন চলছে। রবিবার ৪১৭ টি দলিলের নিবন্ধন প্রক্রিয়া শেষ হবে । এরপর বিলপারের ১৫টি গ্রামের ১ হাজার ৩শ’ ভূমিহীন পরিবারের মধ্যে পর্যায়ক্রমে খাস দলিল বণ্টন করা হবে।