২২ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

সারদা কেলেঙ্কারি এবার তৃণমূলের মন্ত্রী মদন গ্রেফতার


সারদা কেলেঙ্কারি এবার তৃণমূলের মন্ত্রী মদন  গ্রেফতার

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ ভারতের পশ্চিমবঙ্গে সারদা গ্রুপের অর্থ কেলেঙ্কারিতে জড়িত থাকার অভিযোগে এবার গ্রেফতার করা হলো মমতা ব্যানার্জি তথা তৃণমূল সরকারের পরিবহনমন্ত্রী মদন মিত্রকে। শুক্রবার টানা পাঁচ ঘণ্টা জেরার পর কেন্দ্রীয় তদন্ত ব্যুরো (সিবিআই) তাকে গ্রেফতার করে। সিবিআইয়ের জিজ্ঞাসাবাদ এড়াতে প্রায় এক মাস হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন মদন মিত্র। এর আগে ১৫ নবেম্বর মদন মিত্রের বিরুদ্ধে সমন জারি করে সিবিআই। মদন মিত্রের পাশাপাশি সুদীপ্ত সেনের আইনজীবী নরেশ ভালোটিয়াকেও এদিন গ্রেফতার করা হয়। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়া ও আনন্দবাজার অনলাইনের।

আনন্দবাজারের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, সারদা কেলেঙ্কারির তদন্তে সিবিআই এর আগে বেশ কয়েকবার মদন মিত্রকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডাকে। কিন্তু তিনি জেরা থেকে বাঁচতে হাসপাতালে ভর্তি হন। প্রায় এক মাস হাসপাতালে কাটিয়ে বাড়ি ফেরার পর মদনকে ফের তলব করে সিবিআই। শেষ পর্যন্ত শুক্রবার তিনি জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি হন। টানা পাঁচ ঘণ্টা জেরা করার সময় অনেক প্রশ্নের ‘সদুত্তর’ দিতে না পারায় তাকে গ্রেফতার করা হয় বলে জানান সিবিআই কর্মকর্তারা।

মদনের পাশাপাশি সুদীপ্ত সেনের আইনজীবী নরেশ ভালোটিয়াকেও শুক্রবার গ্রেফতার করে সিবিআই। শনিবার তাদের আদালতে হাজির করা হবে।

গত বছর বাংলা নববর্ষের দিন পশ্চিমবঙ্গের তারা নিউজ, তারা মিউজিক ও সাউথ এশিয়া টেলিভিশন বন্ধ হয়ে গেলে এর মালিক প্রতিষ্ঠান সারদা গ্রুপের কেলেঙ্কারির খবর একে একে বেরিয়ে আসতে থাকে।

সারদা গ্রুপের এমএলএম কোম্পানি অল্প সময়ে বেশি লাভের প্রলোভনে বেআইনিভাবে আমানত সংগ্রহের মাধ্যমে পশ্চিমবঙ্গ, অসম, ত্রিপুরা বিহার ও উড়িষ্যার হাজার হাজার মানুষের কাছ থেকে কোটি কোটি রুপী হাতিয়ে নেয়। পরে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশ কেলেঙ্কারি উন্মোচন করলে সারদার চেয়ারম্যান সুদীপ্ত সেনকে গ্রেফতার করা হয়। এরপর থেকে তিনি কারাগারে রয়েছেন।

মদন মিত্রের বিরুদ্ধে সারদা গ্রুপের চেয়ারম্যান সুদীপ্ত সেনের কাছ থেকে অনৈতিক আর্থিক সুবিধা নেয়া ও ষড়যন্ত্রের অভিযোগ আনা হয়েছে। মদন হলেন তৃণমূলের চতুর্থ প্রভাবশালী নেতা, যাকে এই কেলেঙ্কারিতে জেলে যেতে হলো। এছাড়া সারদাকা-ে জড়িত অভিযোগে তৃণমূলের কুণাল ঘোষ, রজত মজুমদার ও সৃঞ্জয় বসুকেও এর আগে গ্রেফতার করে সিবিআই।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: