২৩ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আবহাওয়া অনুকূলে উত্তরাঞ্চলে এবার আগাম বীজতলা


স্টাফ রিপোর্টার নীলফামারী ॥ আসন্ন সেচনির্ভর বোরো আবাদে রংপুর ও দিনাজপুর কৃষি অঞ্চলে পুরোদমে শুরু হয়েছে বোরো বীজতলা তৈরির কাজ। যারা আগে বীজতলা তৈরি করেছেন তাদের চারা গজেছে। আবার কেউ কেউ নতুন করে বীজতলা তৈরি করছেন। এবার আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় মৌসুম শুরুর কিছুটা আগেই বীজতলা তৈরিতে নেমেছেন কৃষকরা।

সূত্র জানায়, চলতি বছরের রংপুর ও দিনাজপুর কৃষি অঞ্চলের ৮টি জেলায় ৫৪ হাজার ৯৬ হেক্টর জমিতে বীজতলা তৈরির লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে।

কৃষি বিভাগ জানায়, এ বছর বিএডিসির ১০ কেজি ব্যাগের ভিত্তি বোরো ধানের বীজ ৪১৫ টাকায় অর্থাৎ প্রতিকেজির দাম ৪১ টাকা ৫০ পয়সা। অপরদিকে ১০ কেজি ব্যাগের প্রত্যায়িত বোরো বীজের দাম ৩৭৫ টাকা অর্থাৎ প্রতিকেজি বীজের দাম ৩৭ টাকা ৫০ পয়সা। গত বছর ভিত্তি বীজ এবং প্রত্যায়িত বীজের কেজি ছিল যথাক্রমে ৩৮ টাকা ও ৩৩ টাকা।

নীলফামারী কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মহসিন রেজা রূপম জানান, এই অঞ্চলে প্রতি বছরই বোরো ধানের বাম্পার ফলন হয়। আশা করা যাচ্ছে এ বছরও তা অব্যাহত থাকবে। এবার কিছুটা আগেভাগে বীজতলা তৈরির কাজ শুরু হয়েছে।

ঘন কুয়াশার কারণে যদি বীজতলা ক্ষতিগ্রস্ত না হয় তাহলে বোরোর চারা উৎপাদনে রেকর্ড হবে। ফলে কৃষকরাও বোরো আবাদে চারা সঙ্কটে পড়বে না।