২২ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আইপিটিএল মজার খেলা ॥ সেরেনা


আইপিটিএল মজার  খেলা ॥ সেরেনা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ প্রথমবারের মতো আয়োজন করা হলো আন্তর্জাতিক টেনিস প্রিমিয়ার লীগ। আর এই আসরের সবচেয়ে বড় তারকার নাম সেরেনা উইলিয়ামস। ব্যতিক্রম ধর্মী এই টেনিস টুর্নামেন্টকে ‘মজার’ বলেই উল্লেখ করেছেন আমেরিকান টেনিসের জীবন্ত কিংবদন্তি সেরেনা উইলিয়ামস। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আমি জানতাম এটা হবে মজার একটি টুর্নামেন্ট। আর এ কারণেই এই ইভেন্টে অংশ নেই এবং এটাও জানতাম যে নতুন মৌসুমের জন্য প্রস্তুতি পর্বটাও খারাপ হবে না।’

সিঙ্গাপুর, ম্যানিলা, দুবাই এবং ভারতে-এই চারটি জায়গায় হচ্ছে এই টুর্নামেন্ট। আর মহিলা এককে ১৮ গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট জয়ী সেরেনা উইলিয়ামস ইতোমধ্যেই ফিলিপাইনের ম্যানিলাতে খেলেছেন। তবে এখানে খেলেই অনুভব করতে সক্ষম হয়েছেন যে নতুন মৌসুমের কোর্টে নামার আগে এই ইভেন্টের মাধ্যমে প্রস্তুতিটা বেশ ভালভাবেই করে নিতে পারবেন খেলোয়াড়রা। এ বিষয়ে সেরেনার অভিমত হলো, ‘ম্যানিলাতে খেলার পর এখন আমার উপলব্ধিটা এ রকম যে, ‘নতুন মৌসুমের আগে এখানে প্রস্তুতিটা হবে দুর্দান্ত।’ ১৯৯৯ সালে প্রথমবারের মতো গ্র্যান্ডসøাম জয়ের স্বাদ পেয়েছিলেন সেরেনা উইলিয়ামস। গত দেড় দশক ধরেই টেনিস কোর্টে আধিপত্য দেখিয়েছেন তিনি। চলতি মৌসুমের শেষ গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট ইউএস ওপেনও নিজের করে নিয়েছেন তিনি। আর তাতেই ছুঁয়েছেন ক্রিস এভার্ট ও মার্টিনা নাভ্রাতিলোভাকে। পেছনে ফেলেছেন রজার ফেদেরারকে। এখন সেরেনার সামনে শুধুই স্টেফি গ্রাফ আর মার্গারেট কোর্ট। জার্মান তারকা স্টেফির ঝুলিতে আছে ২২ গ্র্যান্ডসøাম শিরোপা। আর ওপেন যুগ শুরু হওয়ার আগে অস্ট্রেলিয়ার মার্গারেট কোর্ট জিতেছিলেন ২৪ গ্র্যান্ডসøাম। এখনও যেভাবে টেনিস কোর্টে দাপট দেখাচ্ছেন, তাতে স্টেফিকে ছোঁয়াটাও অসম্ভব কিছু নয়।

চলতি বছরের শুরুটা মোটেও ভাল কাটছিল না সেরেনার। মৌসুমের প্রথম তিনটি মেজর টুর্নামেন্টের সবতেই ব্যর্থ হয়েছিলেন তিনি। শিরোপা জয় তো দূরের কথা, কোন গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্টের ফাইনালেই উঠতে পারেননি ৩৩ বছর বয়সী সেরেনা উইলিয়ামস। টেনিস কোর্টে দাপট দেখিয়েছেন তার বড় বোন ভেনাস উইলিয়ামসও। কিন্তু সময়ের ধারায় পতন হয়ে গেছে ভেনাসের। অথচ তেত্রিশ পেরনো সেরেনা উইলিয়ামস এখনও প্রবল দাপটে খেলে যাচ্ছেন। তার পাওয়ার টেনিসের সামনে এখনও বেসামাল নতুন প্রজন্মের খেলোয়াড়রা। তবে আন্তর্জাতিক টেনিস প্রিমিয়ার লীগে নিজেকে স্বরূপে ফিরে পেতে সময় নিচ্ছেন সেরেনা উইলিয়ামস। টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচে জয়ের দেখা পেলেও পরের চার ম্যাচে টানা হেরেছে তারা। তবে ম্যানিলাতে নিজেকে স্বরূপে খোঁজে না পেলেও টুর্নামেন্টের বাকি থাকা ম্যাচগুলোয় সর্বোচ্চটা ঢেলে দিতে প্রস্তুত সেরেনা। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আমি দেখলাম যে এটা দারুণ সম্ভাবনাময় একটি টুর্নামেন্ট। এটা অনেকের জন্যই দারুণ এক সুযোগ। সকল খেলোয়াড়রাই এই আয়োজনে সহায়তা করছেন। তবে এটাও ঠিক যে এখানে হারাটা আমাদের জন্য ভাল কোন খবর নয়। এখানে হেরে যাওয়ায় আমরা খুশি নয়। তবে হার থেকে বেরিয়ে আসার জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করছি।

আন্তর্জাতিক ইন্ডিয়ান টেনিস লীগের আগে গত অক্টোবরে ডব্লিউটিএ ফাইনালসের শিরোপা জেতেন সেরেনা উইলিয়ামস। সেই ইভেন্টের পর এটাই তার প্রথম কোর্টে নামা কোন টুর্নামেন্ট। এই আসরের সিঙ্গাপুর পর্ব শেষ হয়েছে আগেই। আগামী শুক্রবার শেষ হবে ম্যানিলার খেলা। এরপর বাকি থাকবে স্বাগতিক ভারত ও দুবাই। সেখানে নিজের জাত চেনাতে চান সেরেনা উইলিয়ামস। এই সিরিজের চতুর্থ পর্বের খেলা শেষে সবার উপরে অবস্থান করছে ইন্ডিয়ান এ্যাশেস।